বাংলা নিউজ > ময়দান > US Open-এর মঞ্চে একই ফ্রেমে দুই বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ধোনি-কপিল- ভিডিয়ো
ইউএস ওপেনের মঞ্চে একই ফ্রেমে মহেন্দ্র সিং ধোনি এবং কপিল দেব।

US Open-এর মঞ্চে একই ফ্রেমে দুই বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ধোনি-কপিল- ভিডিয়ো

  • আলকারাজ এবং জ্যানিক সিনার বুধবার আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামে ইউএস ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে একটি মহাকাব্যিক এবং রেকর্ড-স্ক্রিপ্টিং টাই খেলেছেন, যা গ্র্যান্ড স্ল্যামের দ্বিতীয় দীর্ঘতম টাই ছিল। ৫ ঘন্টা ১৫ মিনিট ধরে চলে এই লড়াই। আর এই খেলা দেখতেই উপস্থিত ছিলেন দুই প্রাক্তন ক্রিকেট বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক।

হঠাৎ করেই নিউইয়র্কে ইউএস ওপেনের মঞ্চে একই সঙ্গে দেখা গেল দুই বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ককে। আসলে কপিল দেব এবং মহেন্দ্র সিং ধোনি ইউএস ওপেন দেখতে এসেছিলেন। সেখানেই দেখা হয়ে যায় ১৯৮৩ এবং ২০১১ দুই বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ককে। সঙ্গে ছিলেন বিখ্যাত শেফ বিকাশ খান্নাও।

কার্লোস আলকারাজ এবং জ্যানিক সিনার বুধবার আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামে ইউএস ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে একটি মহাকাব্যিক এবং রেকর্ড-স্ক্রিপ্টিং টাই খেলেছেন, যা গ্র্যান্ড স্ল্যামের দ্বিতীয় দীর্ঘতম টাই ছিল। ৫ ঘন্টা ১৫ মিনিট ধরে চলে এই লড়াই। আর এই খেলা দেখতেই উপস্থিত ছিলেন দুই প্রাক্তন ক্রিকেট বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক।

আরও পড়ুন: মাহি হলে এমন মিস করতেন না, পন্তকে দেখে ধোনির জন্য বিলাপ করছেন বাদানি

ইউএস ওপেন তাদের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে খেলা দেখতে আসা কিছু সেলিব্রেটির ছবি শেয়ার করেছে। সেখানে দেখা গিয়েছে, কপিল দেবের পাশে বসেই খেলা দেখছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি। টুর্নামেন্টের দশম দিনে দেখা যায় এই দৃশ্য।

ভারতের দুই কিংবদন্তি ক্রিকেটারকে এক সঙ্গে দেখে ভক্তরা উল্লসিত হয়ে ওঠেন। ধোনির দিকে ক্যামেরা ঘোরালে হাত নেড়ে অভিবাদন জানাতে দেখা যায় তাঁকে। আর কপিল দেব ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে লাজুক মুখে এক গাল হেসে দেন।

ধোনিকে এর আগেও বহু বার গ্র্যান্ড স্লাম দেখতে হাজির হয়েছেন। তিনি টেনিস খেলাও বেশ পছন্দ করেন। ক্রিকেটের পাশাপাশি নিয়মিত টেনিস খেলেন মাহি। রাঁচির জেএসসিএ আন্তর্জাতিক স্টেডিয়াম কমপ্লেক্সে টেনিস খেলতে দেখা যায় তাঁকে। তাই ক্রিকেটের পাশাপাশি টেনিসও যে তাঁর প্রিয় খেলা তা বোঝাই যায়।

আরও পড়ুন: ‘অনেকের কাছে নম্বর রয়েছে, ধোনি ছাড়া আর কেউ যোগাযোগ করেনি’, কেন আক্ষেপ কোহলির?

ধোনি এখনও ক্রিকেট চালিয়ে যাচ্ছেন। তাঁকে এ বারেও ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে চেন্নাই সুপার কিংসে হয়ে খেলতে দেখা যাবে। সিএসকে-র তরফ থেকে এই কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি এটাও জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, চেন্নাই দলের নেতৃত্ব থাকবে তাঁর কাছেই। গত মরশুমে চেন্নাই দলের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল রবীন্দ্র জাদেজাকে। তবে তিনি দলকে জেতাতে ব্যর্থ হন। ফলে আবার দায়িত্ব নিতে হয় ধোনিকে। গত মরশুমে আইপিএল-এর প্লে অফেও পৌঁছতে পারেনি চেন্নাই সুপার কিংস। তবে এ বার সেই ব্যর্থতা ঝেড়ে ফেলতে চায় সিএসকে।

২০২০ সালের ১৫ অগস্ট আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানান ধোনি। তবে আইপিএল-এ খেলা চালিয়ে যেতে থাকেন তিনি। ধোনির ইচ্ছে ছিল, চেন্নাইতেই শেষ আইপিএল ম্যাচ খেলবেন তিনি। সেই অনুযায়ী এই মরশুমের পরেই হয়ত অবসর নেবেন মাহি। আর তাই পঞ্চম শিরোপা জিততে মরিয়া ইয়োলো আর্মি।

বন্ধ করুন