বাংলা নিউজ > ময়দান > 'ও নাকি ফুরিয়ে গিয়েছে!' রোনাল্ডোর সমালোচকদের বিরুদ্ধে ঝাঁঝালো আক্রমণ কোহলির

'ও নাকি ফুরিয়ে গিয়েছে!' রোনাল্ডোর সমালোচকদের বিরুদ্ধে ঝাঁঝালো আক্রমণ কোহলির

ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো ও বিরাট কোহলি। ছবি- টুইটার।

পিএসজি বনাম সৌদি অল-স্টার ম্যাচে রোনাল্ডোর দুর্দান্ত পারফর্ম্যান্সের পরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রিশ্চিয়ানোর সমালোচনা করা ফুটবল বিশেষজ্ঞদের বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন বিরাট কোহলি।

কারণে-অকারণে বিরাট কোহলিকে নিয়ে ভারত তথা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটমহলে সমালোচনার অন্ত নেই। নিজের সমালোচকদের জবাব দিতে বরাবর ব্যাটকেই হাতিয়ার করেন ভারতীয় তারকা। তবে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর সমালোচকদের উদ্দেশ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় যেভাবে ঝাঁঝালো আক্রমণ শানালেন কোহলি, তা নিঃসন্দেহে বেনজির।

পিএসজি বনাম সৌদি অল-স্টার ম্যাচে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো দুর্দান্ত ফুটবল উপহার দেন। অত্যন্ত শক্তিশালী প্যারিস সাঁ-জা'র বিরুদ্ধে কার্যত একা লড়াই চালান সিআর সেভেন। তাঁর দল হারলেও জোড়া গোল করে ম্য়াচের নায়ক হয়ে দেখা দেন রোনাল্ডো।

ক্রিশ্চিয়ানোর এমন পারফর্ম্যান্সে উচ্ছ্বসিত কোহলি সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাট ধরেন নিজের পছন্দের ফুটবল তারকার হয়ে। ইনস্টাগ্রামে কোহলি লেখেন, ৩৮ বছর বয়সেও সর্বোচ্চ পর্যায়ে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে। বসে বসে লোকের নজর কাড়া ও খবরে থাকার জন্য প্রতি সপ্তাহে ওর সমালোচনা করা ফুটবল বিশেষজ্ঞরা এখন মুখে কুলুপ এঁটেছেন। বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্লাবের বিরুদ্ধে এমন পারফর্ম্যান্স দেখে মুখ বন্ধ তাঁদের। এর পরেও বলা হয় ও নাকি ফুরিয়ে গিয়েছে।'

আরও পড়ুন:- এক্কেবারে খাঁটি পরামর্শ দিয়েছেন অশ্বিন, মেনে নিলেন ভারতের বোলিং কোচ, কোন পরামর্শ?

<p>রোনাল্ডোকে নিয়ে কোহলির পোস্ট।</p>

রোনাল্ডোকে নিয়ে কোহলির পোস্ট।

পিএসজি বনাম সৌদি অল স্টার একাদশের ম্যাচ ঘিরে ফুটবলপ্রেমীদের আগ্রহ ছিল তুঙ্গে। আসলে ফের মেসি-রোনাল্ডো একে অপরের বিরুদ্ধে খেলতে নামছেন, এই বিষয়টিই অনুরাগীদের রাতের ঘুম কাড়ার পক্ষে যথেষ্ট ছিল। শেষমেশ ম্যাচে সৌদি অল স্টার একাদশকে ৫-৪ পরাজিত করে ১০ জনের পিএসজি।

আরও পড়ুন:- ILT20: ধ্বংসাত্মক হাফ-সেঞ্চুরি আন্দ্রে রাসেলের, তবু লজ্জার হার নাইট রাইডার্সের

৩ মিনিট গড়ানোর আগেই মেসির গোল দিয়ে শুরু হয় লড়াই। ৩৪ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করে সৌদি অল স্টার একাদশকে সমতায় ফেরান রোনাল্ডো। ৩৮ মিনিটের মাথায় দ্বিতীয়বার হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন জুয়ান বার্নেট। ফলে বাকি সময় দশ জনে খেলতে হয় পিএসজি-কে। ৪৩ মিনিটের মাথায় এমবাপের ক্রস থেকে পিএসজির হয়ে দ্বিতীয় গোল করেন মারকুইনোস। বিরতির বাঁশি বাজার ঠিক আগে রোনাল্ডো ফের সমতায় ফেরান সৌদিকে।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই এমবাপের ক্রস থেকে গোল করে প্যারিসকে ৩-২ এগিয়ে দেন র‌্যামোস। রোনাল্ডোরা অবশ্য ৫৭ মিনিটের মাথায় ফের ম্যাচে সমতা ফেরান। দক্ষিণ কোরিয়ার জাং এবার বল জড়ান পিএসজি-র জালে। ২ মিনিট পরে বক্সের মধ্যে মেসির শটে হাত লাগিয়ে পিএসজি-কে পেনাল্টি উপহার দেন সৌদির ডিফেন্ডার। পেনাল্টি থেকে গোল করতে কোনও ভুল করেননি এমবাপে।

৭৭ মিনিটের মাথায় পিএসজির হয়ে আরও একটি গোল করেন হুগো একিটিকে। খেলার অতিরিক্ত সময়ে সৌদি একাদশের হয়ে চার নম্বর গোল করেন ট্যালিস্কা।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বন্ধ করুন