বাংলা নিউজ > ময়দান > Women's WC: ‘অবসর নিয়ে ভাবছি না, দলের সাফল্যই লক্ষ্য’,২৫০ উইকেটের পর দাবি ঝুলনের
ঝুলন গোস্বামী।

Women's WC: ‘অবসর নিয়ে ভাবছি না, দলের সাফল্যই লক্ষ্য’,২৫০ উইকেটের পর দাবি ঝুলনের

  • বিশ্বকাপের চতুর্থ ম্যাচে ইংল্যান্ডের ট্যামি বিউমন্টকে ফিরিয়ে মেয়েদের ওয়ান ডে ক্রিকেটে প্রথম ও একমাত্র বোলার হিসেবে ২৫০ উইকেটের মাইলস্টোন ছুঁয়ে ফেলেন ঝুলন। সার্বিক ভাবে মেয়েদের ওয়ান ডে ক্রিকেটে সব থেকে বেশি উইকেট রয়েছে ঝুলনের ঝুলিতেই। বিশ্বের আর কোনও বোলার ২০০-র ঘরেই ঢুকতে পারেননি।

বিশ্বকাপে পরপর চারটি ম্যাচে ব্যক্তিগত নজির গড়লেন ঝুলন গোস্বামী। প্রথমে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে জোড়া উইকেট নেওয়ার সুবাদে বিশ্বকাপের ইতিহাসে সব থেকে বেশি উইকেটশিকারিদের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসেন ঝুলন (৩৮)। তিনি টপকে যান ইংল্যান্ডের ক্যারল হজেসকে (৩৭)।

পরে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় ম্যাচে ইনিংসের একেবারে শেষ ওভারে ঝুলন ফিরিয়ে দেন কেটি মার্টিনকে। সেই সুবাদে তিনি যুগ্মভাবে মহিলা বিশ্বকাপে সব থেকে বেশি উইকেট নেওয়া বোলারে পরিণত হন। এই নিরিখে ভারতীয় তারকা বসে পড়েন অস্ট্রেলিয়ার লিন ফুলস্টোনের পাশে (৩৯)।

বিশ্বকাপের তৃতীয় ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের আনিসা মহম্মদকে ফিরিয়ে বাংলার তারকা পেসার পরিণত হলেন মেয়েদের ওয়ান ডে বিশ্বকাপে সব থেকে বেশি উইকেট নেওয়া বোলারে। ফুলস্টোনকে টপকে বিশ্বরেকর্ড গড়েন ঝুলন (৪০)।

এবার চতুর্থ ম্যাচে ইংল্যান্ডের ট্যামি বিউমন্টকে ফিরিয়ে মেয়েদের ওয়ান ডে ক্রিকেটে প্রথম ও একমাত্র বোলার হিসেবে ২৫০ উইকেটের মাইলস্টোন ছুঁয়ে ফেলেন ঝুলন। সার্বিক ভাবে মেয়েদের ওয়ান ডে ক্রিকেটে সব থেকে বেশি উইকেট রয়েছে ঝুলনের ঝুলিতেই। বিশ্বের আর কোনও বোলার ২০০-র ঘরেই ঢুকতে পারেননি।

তবে এই সাফল্যের পরেও বাড়তি উচ্ছ্বাস নেই ঝুলনের মধ্যে। বরং দল হেরে যাওয়ায় তিনি হতাশ। ঝুলনকে তাঁর ব্যক্তিগত মাইলস্টোন নিয়ে প্রশ্ন করা হলে, তিনি দলগত সাফল্যের কথাই বলেন। ঝুলনের দাবি, ‘ব্যক্তিগত মাইলস্টোন সব সময়েই উপভোগ্য। কিন্তু আসল বিষয় হল, ভারতের মতো টিমের প্রতিনিধিত্ব করা। অবসর নিয়ে এই মুহূর্তে কিছু ভাবছি না। এখন বিশ্বকাপই পাখির চোখ। দলের একজন সিনিয়র সদস্য হিসেবে, নিজের সেরা নিংড়ে দিয়ে, দলে নিজের অবদান রাখতে চাই।’

বন্ধ করুন