বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Vivek Oberoi Fraud Case: ১.৫৫ কোটি টাকা চুরি করেছে ব্যবসার পার্টনাররা, মুম্বই পুলিশের দ্বারস্থ বিবেক

Vivek Oberoi Fraud Case: ১.৫৫ কোটি টাকা চুরি করেছে ব্যবসার পার্টনাররা, মুম্বই পুলিশের দ্বারস্থ বিবেক

ব্যবসার অংশীদারদের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ তুলে পুলিশের দ্বারস্থ বিবেক ওবেরয়

Vivek Oberoi Fraud Case: ব্যবসার অংশীদারদের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ তুলে পুলিশের দ্বারস্থ বিবেক ওবেরয়। ১.৫৫ কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগ নিয়ে FIR দায়ের করলেন অভিনেতা ও তাঁর স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা। 

জালিয়াতির অভিযোগ নিয়ে পুলিশের দ্বারস্থ বলিউড বিবেক ওবেরয়। অভিনেতার অভিযোগ, ব্যবসায় টাকা বিনিয়োগ করে প্রতারণার শিকার তিনি। ১.৫৫ কোটি টাকা তছরুপের অভিযোগ নিয়ে পুলিশের দ্বারস্থ অভিনেতা ও তাঁর স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা ওবেরয়। ব্যবসার অংশীদার সঞ্জয় সাহা ও তাঁর মা নন্দিতা সাহার দিকে অভিযোগ তুলে এফআইআর দায়ের করেছেন তাঁরা।

বিবেকের বক্তব্য অনুযায়ী, সঞ্জয়ের ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত রাধিকা নন্দাই নামে একজন। তিনি নাকি তাঁদের সঙ্গে লাভজনক রিটার্নের প্রতিশ্রুতি দিয়ে প্রযোজনা সংস্থা ও ইভেন্ট ম্যানেজমেন্টের ব্যবসায় বিনিয়োগে জন্য উৎসাহ দেন। অভিনেতার কথায়, বিনিয়োগের পর তিনি বুঝতে পারেন সে টাকা ব্যবসার উন্নতিতে নয় বরং ব্যক্তিগত কাজেই ব্যবহার করেছেন ব্যবসার অংশীদাররা। আরও পড়ুন: ‘লেট ইট বি...’, জিতুর সঙ্গে বিচ্ছেদের মাঝেই কেন একথা বললেন নবনীতা

বিবেক এবং তাঁর স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা জৈব পণ্য কেনা এবং বিক্রি করার জন্য ২০১৭ সালের এপ্রিল মাসে 'Oberoi Organic LLP' শুরু করেন। প্রথম দিকে মোটামুটি ভালোই চলছিল সেই ব্যবসা। কিন্তু তিন বছর পর এই কোম্পানি বন্ধ করার কথা ভাবছিলেন তিনি। বাজারে অর্গানিক পণ্যের চাহিদা কমে যাওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নেন তাঁরা। 

'ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস'-এর রিপোর্ট অনুযায়ী, এই সময়ে সঞ্জয় শাহের সংস্পর্শে আসেন বিবেক ওবেরয়। তিনি একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করতেন এবং সিনেমা প্রযোজনা করতেন। ঘটনা এবং সিনেমায় তাঁর অভিজ্ঞতার প্রেক্ষিতে, ওবেরয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে ইভেন্ট আয়োজনের ব্যবসায় সঞ্জয় শাহকে অংশীদার করেছিলেন। ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারিতে, বিবেক ওবেরয় এবং সঞ্জয় শাহ আন্ধেরি এলাকার একটি পাঁচ-তারা হোটেলে ব্যবসায়িক চুক্তি নিয়ে আলোচনা করেন এবং শর্তাবলীতে একমত হন।

পুলিশের কাছে দায়ের করা এফআইআর অনুসারে, জুলাই এবং সেপ্টেম্বর ২০২০-এর মধ্যে চুক্তি অনুসারে ওবেরয় অর্গানিক এলএলপির নাম পরিবর্তন করে আনন্দিতা এন্টারটেইনমেন্ট এলএলপি করা হয়েছিল। এই নতুন ব্যবসার কাজ ছিল অনুষ্ঠান আয়োজন এবং সিনেমা তৈরি। আনন্দিতা এন্টারটেইনমেন্ট এলএলপি-তে অংশীদার হিসাবে সঞ্জয় এবং তাঁর মায়ের নামও যুক্ত করা হয়েছিল। সঞ্জয়ের পরিচিত রাধিকাকে ফার্মে অংশীদার হিসাবে যুক্ত করা হয়েছিল এবং অভিনেতার স্ত্রী প্রিয়াঙ্কাকে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছিল। বিবেক তাঁর সমস্ত শেয়ার হস্তান্তর করে দেন নতুন কোম্পানির নামে।

প্রায় দু'বছর কেটে গেলে অভিনেতা বুঝতে পারেন, নতুন সংস্থার নাম করে যে টাকা তাঁর থেকে নেওয়া হয়, তা ব্যবহার করা হয়েছে অন্য অংশীদারের ব্যক্তিগত কাজে। অভিযোগ, সঞ্জয়, নন্দিতা এবং রাধিকার তরফে জীবন বিমার টাকা দেওয়ার ক্ষেত্রে, গয়না কেনা ও অনান্য খাতে ব্যবহার করেছে ব্যবসার টাকা। ব্যক্তিগত খরচের জন্য ফার্মের তহবিলের ৫৮.৫৬ লাখ টাকা অপব্যবহার করেছেন বলে অভিযোগ। অভিযুক্তের নামে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪০৬, ৪০৯, ৪২০ ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত করছে মুম্বইয়ের এমআইডিসি পুলিশ।

 

 

বায়োস্কোপ খবর

Latest News

বিগ বসে কম্বলের নীচে ‘রগরগে রোমান্স’ আরমান-কৃতিকার! ডিভোর্সের ঘোষণা পায়েলের বিধানসভায় বসতে চলেছে অত্যাধুনিক ক্যামেরা, নিরাপত্তায় বাড়তি কড়াকড়ির কারণ কী?‌ 'মিমি দিদি'র পাশে বসা এই মেয়েটাকে চিনতে পারছেন? পৃথক রাজ্য গঠনের দাবিতে আদিবাসীদের মেগা সমাবেশ রাজস্থানে, সমালোচনায় BJP গম্ভীর কোচ হতেই ভারতীয় দলে KKR-এর রমরমা, দেখুন টিম ইন্ডিয়ার নাইট কানেকশন জ্যোতিষীর রহস্যমৃত্যুতে আলোড়ন বজবজে, পচাগলা দেহ ঘর থেকে উদ্ধার করল পুলিশ প্রিয়াঙ্কাকে টক্কর দিয়ে চিকনি চামেলির সুরে বরযাত্রী মাতিয়েছেন নীতা আম্বানি! বিশ্বকাপ ফাইনালে তাঁর ৪৭ রানের ইনিংসের পিছনে কাদের অবদান! জানালেন অক্ষর প্যাটেল CrowdStrike-র জন্য যত সমস্যা! ওটা কী আদতে? সবকিছু ঝুলে গেলেও ক্ষমা চাইলেন না CEO সঞ্জুর বিরুদ্ধে হওয়া 'অবিচার' নিয়ে গর্জে উঠলেন মনোজ তিওয়ারি, তোপ পন্তকেও

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.