বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Dharmajuddha: কেমন হয়েছে ‘ধর্মযুদ্ধ’? বয়কট ট্রেন্ডের মধ্যেই ছবি দেখে কী বললেন প্রসেনজিৎ

Dharmajuddha: কেমন হয়েছে ‘ধর্মযুদ্ধ’? বয়কট ট্রেন্ডের মধ্যেই ছবি দেখে কী বললেন প্রসেনজিৎ

‘ধর্মযুদ্ধ’ নিয়ে প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়

‘ধর্মযুদ্ধ’ দেখার পর সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডলে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় একটি পোস্ট করেন। টলিউডের ‘ইন্ডাস্ট্রি’ ছবি দেখে নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন।

পরিচালক রাজ চক্রবর্তীর বহু প্রতীক্ষিত ছবি ‘ধর্মযুদ্ধ’। ১১ অগস্ট প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে এই ছবি। অভিনয় করেছেন শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায়, ঋত্বিক, পার্ণো মিত্র, সোহম চক্রবর্তী, স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত সহ অন্যান্যরা। ছবি নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া মিলেছে দর্শক মহলে। টলিউডের ‘ইন্ডাস্ট্রি’ প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় ছবি দেখে নিজের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন।

এদিন নিজের সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডলে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় একটি পোস্ট করেন। তিনি লেখেন, ‘আমার মা ছিলেন আমার সবচেয়ে কাছের বন্ধু, পথপ্রদর্শক আলো... তিনি সবসময় আমার জন্য অনুপ্রেরণা হয়ে থাকবেন। ধন্যবাদ রাজ চক্রবর্তী ধর্মযুদ্ধ বানানোর জন্য। স্বাতীলেখাদির কী শক্তিশালী অভিনয়! শুভশ্রী, পার্ণো, সোহম, ঋত্বিকের অভিনয়-ও দুর্দান্ত।’

আরও পড়ুন: ‘দেশের নাম শুধু হিন্দুস্তান অথবা ভারত হওয়া উচিত’, মোদি-শাহর কাছে আর্জি হাসিনের

প্রসঙ্গত, এই ছবির অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় রয়েছেন স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত। চলতি বছর না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছেন তিনি। কিডনি বিকল হয়ে মৃত্যু হয়েছে অভিনেত্রীর। স্বাতীলেখার মৃত্যুর পর আফশোস করে রাজ জানিয়েছিলেন, স্বাতীলেখাদিকে এই ছবি না দেখাতে পারার আফশোস তাঁর থেকে যাবে চিরকাল।

আরও পড়ুন: Anam Mirza: মা হলেন সানিয়া মির্জার বোন আনম, ছেলে হল না মেয়ে?

উল্লেখ্য, অনেক বাঁধা বিপত্তি পেরিয়ে মুক্তি পেয়েছে রাজ চক্রবর্তীর ‘ধর্মযুদ্ধ’। প্রায় দুই বছরের অপেক্ষা শেষে এই ছবি মুক্তি পেয়েছে। আর ছবি মুক্তির পরই সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘ধর্মযুদ্ধ’ বয়কটের ডাক দিচ্ছেন নেটজনতা। রাজ চক্রবর্তীর বিরুদ্ধে নতুন অভিযোগ। তাঁর 'ধর্মযুদ্ধ' হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের ভাবাবেগে আঘাত করেছে। নেটমাধ্যমে ছবিটিকে না দেখার আর্জি করছেন অনেকে। কিন্তু কেন?

একাংশ নেটিজেনের বক্তব্য, রাজ চক্রবর্তীর পরিচালিত ছবি ‘ধর্মযুদ্ধ’তে দেখানো হয়েছে শ্রীমদ্ভগবদগীতার শ্লোক পাঠ করে মানুষের গলা কাটার দৃশ্য। এর উল্লেখ আদৌ হিন্দুধর্মে নেই। জ্ঞানত হিন্দুধর্মকে টার্গেট করা হয়েছে, তাই নাকি এই ছবি বয়কট-এর ডাক দিয়েছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: 'আমি অন্তঃসত্ত্বা নই...’, আচমকা কেন অনিতার নেটমাধ্যমের পাতায় ভেসে উঠল এই ছবি!

এ হেন পরিস্থিতিতে তাঁদের উদ্দেশে সপাট জবাব রাজের। নেটমাধ্যমের পাতায় তিনি লেখেন, 'ধর্মযুদ্ধ'-এ কোথাও গলা কাটা তো দূরে থাক, এক ফোঁটা রক্তপাতও দেখানো হয়নি। আর তোমরা সিনেমাটা না দেখেই বয়কটের ডাক দিচ্ছো? তোমরা কি ছাগল না পাগল?' তাঁর বক্তব্য, 'ধর্মযুদ্ধ'-এ কোনও ধর্মকে ছোট করা হয়নি। আগে 'ধর্মযুদ্ধ' দেখুন। তারপর ঠিক করুন ছবিটি বয়কট করবেন কি না। অযথা প্ররোচনায় পা দেবেন না।'

বন্ধ করুন