বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Crime Against Women: দিল্লিতে একদমই নিরাপদ নন মহিলারা! লজ্জার তালিকায় পরের দুই স্থানে কোন শহর?

Crime Against Women: দিল্লিতে একদমই নিরাপদ নন মহিলারা! লজ্জার তালিকায় পরের দুই স্থানে কোন শহর?

দিল্লিতে মহিলাদের বিরুদ্ধে সর্বাধিক অপরাধের ঘটনা ঘটেছে ২০২১ সালে।

'ফেল' অমিত শাহের পুলিশ। দেশের সব মেট্রো শহরের মধ্যে লজ্জার তালিকায় শীর্ষে রাজধানী। দিল্লিতে মহিলাদের বিরুদ্ধে সর্বাধিক অপরাধের ঘটনা ঘটেছে ২০২১ সালে।

নারী নিরাপত্তার দিক থেকে বিগত কয়েক বছর ধরে পিছিয়ে থেকেছে দিল্লি। দিল্লির নারী নিরাপত্তার প্রসঙ্গ উঠলেই নির্ভয়া কাণ্ড চোখের সামনে ভেসে ওঠে। এরপরও প্রতিবছর এই ধরনের একাধিক ঘটনা ঘটে থাকে। সরাসরি কেন্দ্রের অধীনে থাকা দিল্লি পুলিশ নারীদের বিরুদ্ধে সংগঠিত অপরাধ রুখতে ব্যর্থ হচ্ছে ক্রমাগত। ন্যাশনাল ক্রাইম ব্যুরোর রিপোর্ট অনুযায়ী, দিল্লিতে ২০২১ সালে মহিলাদের বিরুদ্ধে অপরাধের ১৩,৮৯২টি ঘটনা ঘটেছে। ২০২০ সালের তুলনায় তা ৪০ শতাংশেরও বেশি। ২০২০ সালে এই সংখ্যাটি ছিল ৯৭৮২।

ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ডস ব্যুরো তথ্য অনুসারে, দিল্লিতে মহিলাদের বিরুদ্ধে অপরাধের ঘটনাগুলি দেশের মোট ১৯টি মেট্রোপলিটন শহরে ঘটে যাওয়া এই ধরনের মোট অপরাধের ৩২.২০ শতাংশ। দিল্লির পরে এই তালিকায় রয়েছে মুম্বই। সেখানে এই ধরনের ৫৫৪৩টি ঘটনা ঘটেছে ২০২১ সালে। এরপরই তালিকায় আছে বেঙ্গালুরু। সেখানে এই ধরনের ৩১২৭টি ঘটনা ঘটেছে। ১৯টি মেট্রো শহরের মধ্যে মুম্বইতে নারীদের বিরুদ্ধে অপরাধ ১২.২ শতাংশ, বেঙ্গালুরুতে তা ৭.২ শতাংশ।

এদিকে রিপোর্ট অনুযায়ী, জাতীয় রাজধানীতে মহিলাদের অপহরণের ঘটনা ঘটেছে ৩৯৪৮টি, স্বামীদের অত্যাচারের শিকার ৪৬৭৪ জন মহিলা এবং শিশুকন্যার ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে ৮৩৩টি। ২০২১ সালে দিল্লিতে প্রতিদিন গড়ে দু’জন নারী ধর্ষণের শিকার হয়েছেন। রিপোর্ট অনুসারে, জাতীয় রাজধানী ২০২১ সালে মহিলাদের বিরুদ্ধে অপরাধের ১৩,৯৮২টি মামলা নথিভুক্ত হয়েছে। দেশের মোট ১৯টি মেট্রোপলিটন শহরে মহিলাদের বিরুদ্ধে মোট অপরাধের সংখ্যা ছিল ৪৩,৪১৪।

এদিকে যৌতুকের দাবিতে বধূ হত্যার ১৩৬টি ঘটনা ঘটেছে দিল্লিতে। এদিকে পকসো আইনের অধীনে (মেয়েদের বিরুদ্ধে অপরাধের ক্ষেত্রে) দিল্লিতে ২০২১ সালে ১৩৫৭টি মামলা রুজু হয়েছে। দিল্লিতেই সর্বোচ্চ ৮৩৩টি শিশুকন্যার ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে ২০২১ সালে।

বন্ধ করুন