বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > করেছেন আন্দোলন থেকে সাংবাদিকতা, একনজরে পরবর্তী CJI রামানার জীবন
এনভি রামানা (ফাইল ছবি : পিটিআই)
এনভি রামানা (ফাইল ছবি : পিটিআই)

করেছেন আন্দোলন থেকে সাংবাদিকতা, একনজরে পরবর্তী CJI রামানার জীবন

  • ভারতের ৪৮তম প্রধান বিচারপতি হিসাবে শপথ নেবেন এনভি রামানা। ২০১৪ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি হিসাবে নিযুক্ত করা হয় তাঁকে।

ভারতের পরবর্তী প্রধান বিচারপতি পদে নিযুক্ত হতে চলেছেন নুথালাপতি ভেঙ্কট রামানা বা এনভি রামানা। ভারতের ৪৮তম প্রধান বিচারপতি হিসাবে শপথ নেবেন এনভি রামানা। ২০১৪ সালের ১৭ ফেব্রুয়ারি সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি হিসাবে নিযুক্ত করা হয় তাঁকে।

রামানার জন্ম অন্ধ্রপ্রদেশের কৃষ্ণা দেলার পোন্নাভারামে, ১৯৫৭ সালের ২৭ অগাস্ট। কৃষক পরিবারের সন্তান ছিলেন তিনি। ২০০০ সালে অন্ধ্রপ্রদেশ হাইকোর্টের স্থায়ী বিচারপতি হিসাবে নিযুক্ত হন। ২০১৪ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে সুপ্রিম কোর্টে নিয়োগের আগে দিল্লি হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতিরও দায়িত্ব সামলেছেন রামানা। জরুরি অবস্থার সময় মানবাধিকার নিয়ে আন্দোলন করায় পড়াশোনার ক্ষেত্রে একবছর পিছিয়ে পড়েছিলেন তিনি। ১৯৭০-এর দশকে পৃথক অন্ধ্র রাজ্যের দাবিতেও আন্দোলনে জড়িয়েছিলেন রামনা। ১৯৭৯ থেকে ১৯৮০ পর্যন্ত ইনাডু সংবাদপত্রে সাংবাদিকতা করেন। এরপর ১৯৮৩ সালে আইনজীবী হিসেবে কাজ শুরু করেন রামানা।

৩৭০ ধারা প্রত্যাহারের পর জম্মু ও কাশ্মীরে যখন মাসের পর মাস ইন্টারনেট পরিষেবা স্তব্ধ করে রাখা হয়েছিল, তখন কেন্দ্রের এই পদক্ষেপ অবিলম্বে পুনর্বিবেচনা করা উচিত বলে তার পর্যবেক্ষণে জানিয়েছিল শীর্ষ আদালত। যে বেঞ্চ একথা বলেছিল, তার অন্যতম সদস্য ছিলেন বিচারপতি রামানা। এদিকে রামানার বিরুদ্ধে অন্ধ্রের মুখ্যমন্ত্রী জগনমোহন রেড্ডি অভিযোগ করেন, হাইকোর্টের উপর প্রভাব খাটিয়ে তাঁর সরকারের নীতি এবং আইন লাগু করার ক্ষেত্রে বাধা সৃষ্টি করছে। এই অভিযোগের প্রেক্ষিতে একটি অভ্যন্তরীণ তদন্ত হয়। এবং তারপর রেড্ডির অভিযোগ উড়িয়ে দেওয়া হয়।

আজ, অর্থাত্ ২৩ এপ্রিল প্রধান বিচারপতি পদের মেয়াদ শেষ হবে বিচারপতি এসএ বোবদের। পরদিন, অর্থাৎ ২৪ এপ্রিল তাঁর উত্তরসূরি হিসাবে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন বিচারপতি রামানা। ১৬ মাসেরও বেশি সময় ধরে প্রধান বিচারপতি পদে আসীন থাকবেন এনভি রামানা। তাঁর কার্যকালের মেয়াদ শেষ হবে ২০২২ সালের ২৬ অগাস্ট। যা গত প্রায় এক দশকে দীর্ঘতম।

বন্ধ করুন