বাংলা নিউজ > ময়দান > পুরুষ-মহিলা বিভাগে আলাদা স্বত্ব, ৩ আলাদা প্যাকেজ ৭১১ ম্যাচের রাইটস নিলামে আইসিসি
৭১১ ম্যাচের রাইটস নিলামে আইসিসি। ছবি: টুইটার

পুরুষ-মহিলা বিভাগে আলাদা স্বত্ব, ৩ আলাদা প্যাকেজ ৭১১ ম্যাচের রাইটস নিলামে আইসিসি

  • বিসিসিআই আইপিএলের মিডিয়া রাইটস বিক্রি করে ৪৮, ৩৯০ কোটি টাকা আয় করার পরে আইসিসির কর্তা ব্যক্তিরাও আশা করছেন তাদের আয় বাড়তে পারে আগের থেকে। আইসিসির ক্ষেত্রে অবশ্য ই-নিলাম হবে না। এক্ষেত্রে 'কনভেনশনাল' মুখবন্ধ খামে হাকা হবে দরপত্র।

শুভব্রত মুখার্জি: আইপিএলের মিডিয়া স্বত্বের নিলাম ইতিমধ্যেই হয়ে গিয়েছে। আগামী পাচ বছরের টিভি এবং ডিজিটাল স্বত্ব বিক্রি করে বিপুল অঙ্কের টাকা আয় করেছে বিসিসিআই। এবার পালা বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা আইসিসির। তাদের তরফে আগামী ২০ জুন সামনে আসতে চলেছে টিভি এবং ডিজিটাল ব্রডকাস্টিংয়ের স্বত্বের টেন্ডারপত্র। এবার কার্যত বিসিসিআইয়ের দেখানো পথেই হাঁটতে চলেছে আইসিসি। তিনটি প্যাকেজে ভাগ করা হয়েছে এই গোটা নিলামকে। আগামী আট বছরের জন্য আইসিসি আয়োজিত সমস্ত ক্রিকেট টুর্নামেন্টের জন্য দরপত্র আহ্বান করা হতে চলেছে।

এবারের দরপত্রের সবথেকে বড়, বৈশিষ্ট্য পুরুষ ও মহিলা ক্রিকেটের ক্ষেত্রে আলাদা আলাদা দরপত্র অর্থাৎ আলাদা আলাদা প্যাকেজে কিনতে হবে স্বত্ব। ২০২৪ সালে থেকে শুরু হবে এই স্বত্ব। মোট ৭১১ টি ম্যাচের জন্য হাঁকা হবে দরপত্র। প্যাকেজের মধ্যে থাকবে একাধিক মহিলা অনুর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপও। বিসিসিআই আইপিএলের মিডিয়া রাইটস বিক্রি করে ৪৮, ৩৯০ কোটি টাকা আয় করার পরে আইসিসির কর্তা ব্যক্তিরাও আশা করছেন তাদের আয় বাড়তে পারে আগের থেকে। আইসিসির ক্ষেত্রে অবশ্য ই-নিলাম হবে না। এক্ষেত্রে 'কনভেনশনাল' মুখবন্ধ খামে হাকা হবে দরপত্র।

আইসিসি তিনটি প্যাকেজে ভেঙেছে গোটা প্রক্রিয়াকে। প্যাকেজ 'এ'তে রয়েছে টিভি রাইটস, প্যাকেজ 'বি'তে রয়েছে ডিজিটাল রাইটস এবং প্যাকেজ 'সি' তে থাকবে টিভি এবং ডিজিটাল রাইটস যৌথ। পুরুষ বিভাগে রয়েছে আবার দুটি সময়সীমা ৪ এবং ৮ বছর। দরপত্র হাঁকাতে হবে কমপক্ষে চার বছরের জন্য। মহিলা বিভাগের ক্ষেত্রেও রয়েছে এক নিয়ম। ৮ বছরে ১৬ টি পুরুষ বিভাগের ইভেন্ট এবং ৪ বছরে ৬ টি মহিলা বিভাগের ইভেন্টে রয়েছে যথাক্রমে ৩৬২ এবং ১০৩ টি ম্যাচ। এছাড়াও অনুর্ধ্ব-১৯ পর্যায়ে (পুরুষ ও মহিলা) রয়েছে ৪৬৫ ম্যাচ। এই দরপত্র শুধুমাত্র ভারতীয় বাজারের জন্যই হাঁকানো যাবে।

বন্ধ করুন