বাংলা নিউজ > ময়দান > ধোনি যার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর, সেই মার্কিন সংস্থার সঙ্গে গাঁটছড়া বাধল BCCI
ভারতে অনুষ্ঠিত সব দ্বি-পাক্ষিক ও ঘরোয়া ক্রিকেট টুর্নামেন্টের টাইটেল স্পনসর খুঁজে নিল BCCI।

ধোনি যার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর, সেই মার্কিন সংস্থার সঙ্গে গাঁটছড়া বাধল BCCI

  • আসন্ন মরশুমের জন্য বহুজাতিক আর্থিক পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থাটির সঙ্গে টাইটেল স্পনসরশিপ চুক্তি স্বাক্ষর করল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।

ভারতীয় ক্রিকেটের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধল বহুজাতিক আর্থিক পরিষেবা প্রদানকারী মার্কিন সংস্থা মাস্টারকার্ড, স্বয়ং মহেন্দ্র সিং ধোনি যে সংস্থার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর। আসন্ন ২০২২-২৩ মরশুমের জন্য ভারতে অনুষ্ঠিত সব আন্তর্জাতিক (আইসিসি ইভেন্ট বাদে) ও ঘরোয়া ক্রিকেট টুর্নামেন্টের টাইটেল স্পনসর হল তারা। এক্ষেত্রে মাস্টারকার্ড চুক্তিবদ্ধ হল পেটিএম-এর জায়গায়।

আসন্ন ঘরোয়া মরশুমে ভারতের মাটিতে অনুষ্ঠিত হতে চলা ছেলে ও মেয়েদের সব দ্বি-পাক্ষিক আন্তর্জাতিক ম্যাচ, ইরানি ট্রফি, দলীপ ট্রফি, রঞ্জি ট্রফি-সহ বিসিসিআই আয়োজিত সব ঘরোয়া টুর্নামেন্ট, অনূর্ধ্ব-২৩ ও অনূর্ধ্ব-১৯'এর মতো বয়সভিত্তিক টুর্নামেন্টগুলির টাইটেল স্পনসর হয় মাস্টারকার্ড।

উল্লেখ্য, খেলাধুলোর আঙিনায় মাস্টারকার্ডের স্পনসরশিপ চুক্তি এই প্রথম নয়। উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ, অস্ট্রেলিয়ান ওপেন, ফ্রেঞ্চ ওপেনের মতো টুর্নামেন্টে স্পনসর হিসেবে দেখা যায় মাস্টারকার্ডকে। এছাড়া গ্র্যামি ও কান ফিল্ম ফেস্টিভ্যালের মতো ইভেন্টকেও স্পনসর করে তারা।

আরও পড়ুন:- পাকিস্তানের কাছে ভারতের হারের পরে অশ্লীল আক্রমণ, ঝগড়ুটের মতো পালটা জবাব বুমরাহ পত্নী সঞ্জনার

২০২২-২৩ মরশুমে ঘরের মাঠে ভারতের ঠাসা আন্তর্জাতিক ক্রীড়াসূচি রয়েছে। টি-২০ বিশ্বকাপের আগে দক্ষিণ আফ্রিকা ও অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে নিজেদের দেশে ২টি সীমিত ওভারের সিরিজ খেলবে ভারত। বিশ্বকাপের পরে শ্রীলঙ্কা ও নিউজিল্যান্ড ভারত সফরে আসবে। নতুন বছরে অনুষ্ঠিত হবে ভারত-অস্ট্রেলিয়া বর্ডার-গাভাসকর ট্রফি।

আরও পড়ুন:- Arshdeep Singh coach slams trollers: 'আগেরবার ২ উইকেট পেতে এই লোকগুলোই লাফাচ্ছিল', ট্রোলারদের পালটা আর্শদীপের কোচের

শুধু আন্তর্জাতিক ক্রিকেটই নয়, আসন্ন মরশুমে ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটেরও প্রচুর ম্যাচ আয়োজিত হবে। করোনা মহামারির জন্য ঘরোয়া সূচিতে কাটছাঁট করতে হয়েছিস বিসিসিআইকে। এবার সব ঘরোয়া টুর্মামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে আগের মতোই। দলীপ ট্রফি ফিরছে। ইরানি ট্রফি ছাড়াও রঞ্জি ট্রফি, বিজয় হাজারে ট্রফি ও সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফি আয়োজিত হবে কোনও রকম কাটছাঁট না করেই।

বন্ধ করুন