বাংলা নিউজ > টেকটক > ভারতে চিনা ফোনে অনীহা? Xiaomi-কে টপকে বিক্রিতে এক নম্বরে Samsung- রিপোর্ট

ভারতে চিনা ফোনে অনীহা? Xiaomi-কে টপকে বিক্রিতে এক নম্বরে Samsung- রিপোর্ট

ফাইল ছবি: স্যামসাং (Samsung)

দামি ফোন বলতে সবার আগে অ্যাপেলের আইফোনের নাম-ই মাথায় আসে। কিন্তু তার দাম অনেকটাই বেশি। তাই স্যামসাংয়ের ফোন দিয়ে, তুলনামূলকভাবে কমে, দুধের স্বাদ, ঘোলে মেটাচ্ছেন ক্রেতারা।

একটাই নেব। ভালো দেখে নেব। সময়ের সঙ্গে দামি স্মার্টফোনের প্রতি ঝোঁক বাড়ছে আমজনতার। সকলেরই চাহিদা একটু ভালো ক্যামেরা, বেশি RAM, শক্তিশালী প্রসেসর। চলনসই ফোনের বাজার ক্রমেই কমছে। তার সবচেয়ে বড় প্রমাণ কী জানেন? আরও পড়ুন: Satelite Calling: সিম লাগবে না, স্যাটেলাইট দিয়েই করা যাবে ফোন কল!

সম্প্রতি রয়টার্সে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, Xiaomi-কে টপকে, দেশের বৃহত্তম স্মার্টফোন বিক্রেতা হয়ে গিয়েছে Samsung। শাওমির মূল জোর থাকে একেবারে সস্তা থেকে মাঝারি দামের স্মার্টফোনে। অন্যদিকে স্যামসাং ক্রমাগত মাঝারি থেকে বেশি দামের স্মার্টফোনে জোর দিয়েছে। আর তার ফলও মিলেছে হাতেনাতে। শাওমিকে টপকে এগিয়ে গিয়েছে তারা। শাওমির সস্তার স্মার্টফোন একসময়ে মুড়ি-মুড়কির মতো বিক্রি হত। কিন্তু এখন তার বদলে আরও একটু টাকা জমিয়ে স্যামসাং, ওয়ানপ্লাসের মতো একটু দামি, ব্র্যান্ডেড ফোনের দিকে আগ্রহী সকলে।

কেন? এর একটি কারণ অবশ্যই ব্র্যান্ড। সময়ের সঙ্গে সকলের ব্র্যান্ড সচেতনতা বাড়ছে। তার প্রভাব পড়ছে ফ্যাশান, যানবাহন থেকে স্মার্টফোনে। তাছাড়া এই ব্র্যান্ডের সঙ্গে ফোনগুলির নির্ভরযোগ্যতাও জড়িয়ে বলে মনে করেন অনেকে।

আরও একটি কারণ হল, ক্রেতারা আগের তুলনায় বেশি সচেতন। তাঁদের চাহিদা বেশি। অল্পবয়সীরা গেমিংয়ের জন্য ভালো কনফিগারেশন চাইছেন। অন্যদিকে সোশ্যাল মিডিয়ার যুগে ছবি তোলার প্রবণতা বাড়ছে। সাধারণ, কম মেগাপিক্সেলের ছবিতে মানুষের মন ভরছে না। সেই কারণে আরও দামি ফোন কিনছেন ক্রেতারা।

দামি ফোন বলতে সবার আগে অ্যাপেলের আইফোনের নাম-ই মাথায় আসে। কিন্তু তার দাম অনেকটাই বেশি। তাই স্যামসাংয়ের ফোন দিয়ে, তুলনামূলকভাবে কমে, দুধের স্বাদ, ঘোলে মেটাচ্ছেন ক্রেতারা।

ফলে সেই সময়টা শাওমি ১০ হাজার টাকার কম দামের ফোনে ব্যস্ত ছিল, তখন ১৫-২০ হাজার টাকা থেকে শুরু হচ্ছে, এমন ফোনের প্রচার করেছে স্যামসাং। আর তাতেই বাজিমাত করেছে তারা। এর পাশাপাশি আকর্ষণীয় ফিন্যান্সিং স্কিম, EMI অপশনও দিচ্ছে স্যামসাং।

অন্যদিকে, শাওমিরও যে প্রিমিয়াম ফোন নেই, তা কিন্তু নয়। কিন্তু সস্তার ফোনের সঙ্গে জড়িত কোনও ব্র্যান্ডের ফোনই আরও দাম দিয়ে সাধারণত ক্রেতারা কিনতে চান না। এটাই হয়েছে শাওমির সঙ্গে।

বিষয়টিকে অনেকটা টাটা ন্যানোর সঙ্গে তুলনা করছেন অনেকে। ন্যানোকে 'গরিবের গাড়ি' বলে বাজারে এনেছিল টাটা। আর ঠিক সেই কারণেই, কম দামের সঙ্গে খারাপ গুণমান, ব্র্যান্ডিংয়ের অভাব জড়িয়ে গিয়েছিল। ন্যানো ক্রমেই হারিয়ে যায় বাজার থেকে। এক্ষেত্রে শাওমির সঙ্গেও সেটাই হয়েছে।

এই বিষয়ে আপনার কি মত? আপনার পরের ফোন কোন ব্র্যান্ডের হতে চলেছে? আরও পড়ুন:Samsung-এর ফোনে সত্যিই চাঁদের এত ভালো জুম হয়?

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

টেকটক খবর
বন্ধ করুন

Latest News

রাজ্যসভায় বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী সোনিয়া, নড্ডা, বাংলা থেকে কারা পেলেন জয়? আগামিকাল প্রদোষ ব্রতর শুভ সময়, পুজো বিধি ও প্রদোষ উপবাসের গুরুত্ব জেনে নিন ভূমিষ্ট হল বিরাট-অনুষ্কার দ্বিতীয় সন্তান, ছোট্ট ভামিকার ভাই হল না বোন? ১৯৯০ বিশ্বকাপের ফাইনালে তাঁর গোলেই স্বপ্ন ভেঙেছিল মারাদোনার, প্রয়াত ব্রেমে আজিমগঞ্জ- নসিপুর রেলসেতু খুলবে শীঘ্রই, শিয়ালদা থেকে এনজেপি এবার আরও কাছে বামপন্থীদের অপমানে ভারত ছেড়ে বাংলাদেশে যেতে চান কবীর সুমন! লিখলেন 'ওঁরা আমায়…' পিএসজি ছেড়ে রিয়াল মাদ্রিদের পথে এমবাপ্পে, কত নম্বর জার্সি গায়ে মাঠে নামবেন? আর্টিকেল ৩৭০ দেখার অনুরোধ প্রধানমন্ত্রী মোদীর! ধন্যবাদ জানিয়ে ইয়ামি লিখলেন কী? সম্পর্কের জের? কোন্নগরে শিশু খুনে গ্রেফতার মা ও তাঁর বন্ধবী আগামিকাল কার কেমন কাটবে? জেনে নিন বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারির রাশিফল, আজ সন্ধ্যাতেই

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.