বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > 'করোনা মোকাবিলার জন্য নয়, দল ভাঙানোর জন্য পদে বসেছেন, 'গৌতমকে নিশানা অশোকের
গৌতম দেব ও অশোক ভট্টাচার্য (ফাইল ছবি)
গৌতম দেব ও অশোক ভট্টাচার্য (ফাইল ছবি)

'করোনা মোকাবিলার জন্য নয়, দল ভাঙানোর জন্য পদে বসেছেন, 'গৌতমকে নিশানা অশোকের

  • দল ভাঙাচ্ছেন পুর প্রশাসক, অভিযোগ সিপিএম নেতা অশোক ভট্টাচার্যের। প্রসঙ্গত সম্প্রতি বামেদের একাধিক প্রাক্তন কাউন্সিলর তৃণমূলে গিয়েছেন।

শিলিগুড়়ির রাজনীতিতে অশোক ভট্টাচার্য ও গৌতম দেবের দ্বন্দ্ব নতুন কিছু নয়। হেরে যাওয়ার পরেও সেই দ্বন্দ্ব কমেনি এতটু রাজনৈতিক মহলের মতে, বিগত দিনে যখন মেয়রের চেয়ারে ছিলেন সিপিএম নেতা অশোক ভট্টাচার্য, তখন নানা ইস্যুতে তাঁকে কার্যত নাস্তানাবুদ করতেন তৎকালীন মন্ত্রী তৃণমূলের গৌতম দেব। বর্তমানে সেই গৌতম দেব বিধানসভা ভোটে হেরে যাওয়ার পরে অশোক ভট্টাচার্যের ছেড়ে যাওয়া পুর প্রশাসকের চেয়ারে বসেছেন। এবার সেই গৌতম দেবকে নিশানা করে এবার একের পর এক তির ছুঁড়তে শুরু করেছেন অশোক ভট্টাচার্য।

বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, ‘এই যে বোর্ড অব অ্য়াডমিনিস্ট্রেটর যেটা নিয়োগ করা হয়েছে তাঁরা কি সত্যি সত্যি কোভিড মোকাবিলায় যত্নবান। একেবারেই নন। তাঁরা রাজনৈতিকভাবে এটাকে ব্যবহার করছেন। তারা দল ভাঙাতে চাইছে। চেয়ারম্যান সহ চারজন দল ভাঙাচ্ছেন। ব্ল্যাকমেল করে হুমকি দিয়ে দল ভাঙাচ্ছে তারা। আমাদের কয়েকজনের বাড়িতে ওরা গিয়েছিল। তারা রিজেক্ট করেছে তাঁদের। দলবাজিটা বড় হয়ে দাঁড়িয়েছে। বিরোধী দল ভাঙাতে ওরা বেশি উদ্যোগী।’ 

এর পালটা গৌতম দেব বলেন, ‘তাঁর কথার কোনও উত্তর দেব না। আমরা দায়বদ্ধ মানুষের কাছে। কোনও ব্যক্তির কাছে দায়বদ্ধ নই। অশোকবাবু অনভিপ্রেত সমালোচনা করছেন। মাত্র ১৫দিন হল বসেছি। একটু তো সময় দিন।’ রাজনৈতিক মহলের মতে, জনতার রায়ে পরাজিত দুজনেই। দুজনেই বিজেপির কাছে হেরেছেন। কিন্তু তারপরেও কোভিড পরিস্থিতিতে উভয়ের মধ্যে দ্বন্দ্ব কমার কোনও লক্ষণ নেই।

 

বন্ধ করুন