বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বাড়ির সামনে এসে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি, ব্যবসায়ীকে খুন ধুবুলিয়ায়
প্রতীকী ছবি
প্রতীকী ছবি

বাড়ির সামনে এসে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি, ব্যবসায়ীকে খুন ধুবুলিয়ায়

  • শুক্রবার শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয় দেহটি৷ পুরনো শত্রুতা ছাড়াও কোনও ব্যবসায়ীক বা পারিবারিক গণ্ডগোলে বিকাশবাবু জড়িত ছিলেন কিনা তাও খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

বাড়ির দোরগোড়ায় এসে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে ব্যবসায়ীকে গুলি করে খুন। বৃহস্পতিবার রাতে নদিয়ার ধুবুলিয়া থানার ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের কাছে সিংহাটি গ্রামের ঘটনা।

অভিযোগ, এদিন রাত সাড়ে ১০টা নাগাদ সিংহাটি মোড় থেকে বাড়ি ফেরেন বিকাশ মল্লিক (‌৪০)‌ নামে ওই ব্যবসায়ী। দরজা খুলে বাড়িতে ভেতর ঢুকতে যাওয়ার সময়ই কে বা কারা তাঁকে খুব কাছ থেকে গুলি করে পালিয়ে যায়। তাঁর বুকে ও হাতে গুলি লেগেছে বলে জানা গিয়েছে। রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে স্থানীয় ধুবুলিয়া গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা ওই ব্যবসায়ীকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

রাতেই ঘটনাস্থলে এসে তদন্ত শুরু করেছে ধুবুলিয়া থানার পুলিশ। তাদের অনুমান, পুরনো শত্রুতার জেরেই এই ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ জানিয়েছে, এলাকায় ইট ও বিচালির ব্যবসা করতেন বিকাশ। বিভিন্ন সামাজিক কাজে যুক্ত বিকাশ স্থানীয় সবুজ সঙ্ঘ ক্লাবের সভাপতি ছিলেন। স্বাভাবিকভাবে এলাকায় তাঁর খুব নামডাক ছিল। তাঁকে এভাবে কেন খুন হতে হল বুঝতে পারছেন না তাঁর পরিবার ও পরিচিতরা।

মৃতের স্ত্রী সোনালী বিবি মল্লিক জানান, বিকাশবাবুর কোনও শত্রু ছিল বলে তাঁর জানা নেই। তিনি ইট আর বিচালির ব্যবসা করতেন। ইটের গাড়ি খালি করে বর্ধমান থেকে বিচালি নিয়ে আসতেন বিকাশবাবু৷

মৃতের ভাই তুহিন মল্লিকের দাবি, কে বা কারা তাঁর দাদাকে খুন করল তা তিনি জানেন না। কাউকে দেখতেও পাননি। শুক্রবার শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয় দেহটি৷ পুরনো শত্রুতা ছাড়াও কোনও ব্যবসায়ীক বা পারিবারিক গণ্ডগোলে বিকাশবাবু জড়িত ছিলেন কিনা তাও খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

বন্ধ করুন