বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > কোভিড রোগীকে ভর্তি জেনারেল ওয়ার্ডে, তুলকালাম পরিস্থিতি পানিহাটি হাসপাতালে
মাঝরাতে ওয়ার্ড থেকে বেরিয়ে এলেন অন্যান্য রোগীরা।

কোভিড রোগীকে ভর্তি জেনারেল ওয়ার্ডে, তুলকালাম পরিস্থিতি পানিহাটি হাসপাতালে

  • মহিলা ওয়ার্ডের মধ্যে সদ্য প্রসূতি থেকে শিশু সবাই রয়েছে। সেখানে কোভিড রোগীর থেকে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা থেকে যায়। সেখানে একজন কোভিড রোগীকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কীভাবে ভর্তির অনুমতি দিল? উঠছে প্রশ্ন। যদিও এই নিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুলতে চাননি।

মারাত্মক অভিযোগ উঠল পানিহাটি হাসপাতালের বিরুদ্ধে। হাসপাতালের জেনারেল ওয়ার্ডে কোভিড রোগী ভর্তি করা হয়েছে বলে অভিযোগ। এই আতঙ্কে হাতে স্যালাইনের বোতল নিয়ে মাঝরাতে ওয়ার্ড থেকে বেরিয়ে এলেন অন্যান্য রোগীরা। এই ঘটনায় তোলপাড় হয়ে যায় উত্তর ২৪ পরগনার পানিহাটি হাসপাতাল। করোনাভাইরাসের সময় পানিহাটি হাসপাতালে কোভিড বিভাগ চালু হয়। তারপর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসতে হাসপাতাল থেকে কোভিড ওয়ার্ড তুলে সাধারণ রোগীদের জন্য খুলে দেওয়া হয়।

ঠিক কী ঘটেছে পানিহাটি হাসপাতালে?‌ অভিযোগ, পানিহাটি হাসপাতালের জেনারেল মহিলা ওয়ার্ডে বরানগরের বাসিন্দা লক্ষ্মীনারায়ণ দাস (‌৬৭)‌ নামের এক কোভিড রোগীকে পানিহাটি হাসপাতালের মহিলা জেনারেল ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। জেনারেল ওয়ার্ডে এভাবে কোভিড রোগী ভর্তির খবর ছড়িয়ে পড়তেই আতঙ্কিত অন্যান্য রোগীরা মাঝরাতেই হাতে স্যালাইনের বোতল নিয়ে ওয়ার্ড থেকে বাইরে বেরিয়ে আসেন। এই নিয়ে শোরগোল পড়ে যায়।

তারপর ঠিক কী ঘটল?‌ কেন হাসপাতালের জেনারেল ওয়ার্ডে কোভিড রোগীকে ভর্তি করা হল?‌ এই প্রশ্ন তুলে স্যালাইনের বোতল হাতে নিয়ে বিক্ষোভ দেখান অন্যান্য রোগীরা। মহিলা ওয়ার্ডের মধ্যে প্রসূতি মা ও শিশুরা ভর্তি রয়েছে সেটা জানা সত্ত্বেও একজন কোভিড আক্রান্ত রোগীকে হাসপাতালের ইমার্জেন্সিতে থাকা চিকিৎসক–সহ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কিভাবে জেনারেল ওয়ার্ডে ভর্তি করার অনুমতি দিলেন?‌ এই নিয়েই উঠছে প্রশ্ন।

উল্লেখ্য, মহিলা ওয়ার্ডের মধ্যে সদ্য প্রসূতি থেকে শিশু সবাই রয়েছে। সেখানে কোভিড রোগীর থেকে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা থেকে যায়। সেখানে একজন কোভিড রোগীকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কীভাবে ভর্তির অনুমতি দিল? উঠছে প্রশ্ন। যদিও এই নিয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খুলতে চাননি।

বন্ধ করুন