বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Train accident in Kharagpur: চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে আহত গুগলে ২ কোটি টাকা বেতনের চাকরি পাওয়া যুবক
খড়গপুর স্টেশনে আহত সেই যুবক।

Train accident in Kharagpur: চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে আহত গুগলে ২ কোটি টাকা বেতনের চাকরি পাওয়া যুবক

  • খড়গপুর আইআইটির মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ফাইনাল বর্ষের ছাত্র অরিত্র সেন কিছুদিন আগেই গুগলে প্রায় ২ কোটি টাকা বার্ষিক বেতনের চাকরি পেয়েছিলেন। সামান্য অসতর্কতার জন্য এই মর্মান্তিক পরিণতি হল যুবকের। গত বুধবার খড়গপুর স্টেশনে চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে।

মর্মান্তিক দুর্ঘটনার কবলে পড়লেন গুগলে ২ কোটি টাকা বেতনের চাকরি পাওয়া সেই যুবক। চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ওই যুবকের পা। চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, তার পায়ের অবস্থা এতটাই খারাপ যে প্রয়োজন হলে তার পা কেটে বাদও দেওয়া হতে পারে। তাই পা বাঁচাতে কলকাতার একটি হাসপাতালে তাকে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয়েছে। সেখানে তার চিকিৎসা চলছে।

খড়গপুর আইআইটির মেকানিকাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ফাইনাল বর্ষের ছাত্র অরিত্র সেন কিছুদিন আগেই গুগলে প্রায় ২ কোটি টাকা বার্ষিক বেতনের চাকরি পেয়েছিলেন। সামান্য অসতর্কতার জন্য এই মর্মান্তিক পরিণতি হল যুবকের। গত বুধবার খড়গপুর স্টেশনে চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে গিয়ে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে।

আরও পড়ুন: ট্রেনের ধাক্কায় প্রাণ গেল কাকা–ভাইপোর, মদ্যপান করে ফেরার সময় বিপত্তি নদিয়ায়

কী ঘটেছিল?

প্রত্যপ্রদর্শীরা জানাচ্ছেন, গত বুধবার দুপুরে খড়গপুর স্টেশনের তিন নম্বর প্লাটফর্মে চলন্ত ট্রেন থেকে নামতে যান যুবক। তাড়াহুড়ো করে নামতে গিয়েই বাম পায়ের গোড়ালিতে প্রচণ্ড আঘাত পান ওই যুবক। ঘটনায় তখনই তিনি প্লাটফর্মে পড়ে গিয়ে যন্ত্রণায় কাতরাতে শুরু করেন। বিষয়টি নজরে আসতেই ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন কর্তব্যরত জিআরপি। আইআইটি খড়গপুর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করে আইআইটি বিসি রায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয় অরিত্রকে। তারপরেও অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় কলকাতায় স্থানান্তর করা হয়েছে ওই যুবককে।

রেল পুলিশ ও রেল সুরক্ষাবাহিনী সূত্রে জানা গিয়েছে, খড়গপুর স্টেশনের তিন এবং চার নম্বর প্ল্যাটফর্মে ঢোকার সময় গাড়ির কামরা ফুট ওভার ব্রিজ অথবা সাবওয়ের থেকে দূরত্ব কিছুটা বেশি। সেই কারণে ট্রেন থেকে নেমে অনেকটা হাঁটার ভয়ে অনেকেই চলন্ত ট্রেন থেকে লাফিয়ে পড়ে। অরিত্রর ক্ষেত্রেও তাই হয়েছিল বলে রেলের তরফে জানানো হয়েছে। এখন অনিশ্চয়তার মুখে অরিত্রর ফাইনাল পরীক্ষা ও চাকরি।

বন্ধ করুন