বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘গোল টুপি হলে খুলতে পারত না’, পাগড়ি খুলে শিখকে পুলিশের মারের নিন্দা করে দিলীপ
দিলীপ ঘোষ। ফাইল ছবি
দিলীপ ঘোষ। ফাইল ছবি

‘গোল টুপি হলে খুলতে পারত না’, পাগড়ি খুলে শিখকে পুলিশের মারের নিন্দা করে দিলীপ

  • রাজ্য প্রশাসনের উদ্দেশে সরাসরি চ্যালেঞ্জ ছোড়েন দিলীপ। বলেন, ‘পাগড়ির জায়গায় যদি মাথায় গোল টুপি থাকত তাহলে পুলিশ মারতে পারত? বলবিন্দর একজন শিখ বলে ওর পাগড়ি খুলে দিয়েছে।

বিজেপির নবান্ন অভিযানে শিখ দেহরক্ষী বলবিন্দর সিংহের পাগড়ি খুলে পুলিশি অত্যাচারের প্রতিবাদে ফের একবার মুখ হলেন দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। শনিবার বর্ধমানে এক সাংবাদিক বৈঠকে এই নিয়ে পুলিশকে ফের আক্রমণ করেন তিনি। পুলিশকে দিলীপ ঘোষের কটাক্ষ, ‘পাগড়ি বলে খুলে নিয়েছে, গোল টুপি হলে পারত না’।

এদিন দিলীপবাবু বলেন, ‘আমাদের নেতা প্রিয়াংগু পাণ্ডের দেহরক্ষী বনবিন্দর সিং নামে ওই প্রাক্তন সেনা জওয়ান। দেহরক্ষীকে গ্রেফতার করার কোনও নজির ভূভারতে নেই। তাঁকে পুলিশ যে ভাবে মেরেছে তা নিন্দনীয়।’

এর পরই রাজ্য প্রশাসনের উদ্দেশে সরাসরি চ্যালেঞ্জ ছোড়েন দিলীপ। বলেন, ‘পাগড়ির জায়গায় যদি মাথায় গোল টুপি থাকত তাহলে পুলিশ মারতে পারত? বলবিন্দর একজন শিখ বলে ওর পাগড়ি খুলে দিয়েছে। বিশেষ সুবিধাপ্রাপ্তদের লাথি খেয়ে শান্তিমিছিল করে। আমরা আইন মানি বলে পাগড়ি খুলে দিচ্ছে।’ রাজ্য সরকার তোষণের রাজনীতি করছে বলে এদিন ফের একবার সরব হন দিলীপ। 

বিজেপির মিছিলে শিখ দেহরক্ষীকে পাগড়ি খুলে লাঠিপেটা করার ঘটনায় জল অনেক দূর গড়িয়েছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে টুইট করে এই ঘটনার নিন্দা করেছেন ক্রিকেটার হরভজন সিংহ। ঘটনার নিন্দা করেছেন পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরেন্দ্র সিংহও। হরভজনের টুইটের জবাবও দিয়েছে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশ। 

 

বন্ধ করুন