বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > KMC: কলের কাজ করছিলেন, ‌আচমকা গাড়ির ধাক্কায় মৃত্যু পুরকর্মীর
 প্রতীকী ছবি।
 প্রতীকী ছবি।

KMC: কলের কাজ করছিলেন, ‌আচমকা গাড়ির ধাক্কায় মৃত্যু পুরকর্মীর

  • এর আগে বেপোরোয়া গাড়ির চালনায় একাধিক পথ দুর্ঘটনার ঘটনা ঘটেছে। পথ দুর্ঘটনা রুখতে সেভ ড্রাইভ সেভ লাইফের মতো কর্মসূচিও পালন করেছে কলকাতা পুলিশ। বেপোরোয়াভাবে গাড়ি চালানোর জন্য কঠোর ব্যবস্থাও নেওয়া হচ্ছে। কিন্তু তারপরও এই ধরনের দুর্ঘটনা এড়ানো যাচ্ছে না।

রাস্তার ধারে কলের কাজ করছিলেন এক পুরকর্মী। আচমকাই গাড়ি এসে তাঁকে ধাক্কা মারে। ঘটনাটি ঘটেছে খাস কলকাতায়। মৃত্যু হয়েছে ওই পুরকর্মীর। এই ঘটনায় ঘাতক গাড়ির চালককে গ্রেফতার করা হয়েছে। গাড়িটিকেও আটক করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত পুরকর্মীর নাম লক্ষ্মীকান্ত মণ্ডল। জানা গিয়েছে, তিন মাস পরেই লক্ষ্মীকান্ত মণ্ডলের অবসর নেওয়ার কথা ছিল। অবসর নেওয়ার আগে এই ধরনের ঘটনা ঘটায় পরিবারে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। এদিন কলকাতা পুরনিগমের ৯২ নম্বর ওয়ার্ডে যখন কলের কাজ করছিলেন লক্ষ্মীকান্তবাবু, তখন দ্রুতগতিতে একটি গাড়ি এসে ধাক্কা মারে। সঙ্গে সঙ্গে ওই কর্মীকে উদ্ধার করে তাঁকে এসএসকেএমে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, অতিরিক্ত রক্তরক্ষণের ফলেই লক্ষ্মীকান্তবাবুর মৃত্যু হয়েছে।

এর আগে বেপোরোয়া গাড়ির চালনায় একাধিক পথ দুর্ঘটনার ঘটনা ঘটেছে। পথ দুর্ঘটনা রুখতে সেভ ড্রাইভ সেভ লাইফের মতো কর্মসূচিও পালন করেছে কলকাতা পুলিশ। বেপোরোয়াভাবে গাড়ি চালানোর জন্য কঠোর ব্যবস্থাও নেওয়া হচ্ছে। কিন্তু তারপরও এই ধরনের দুর্ঘটনা এড়ানো যাচ্ছে না। কিছুদিন আগেও কলকাতার বুকে এই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। চায়ের দোকানের সামনে চা খাচ্ছিলেন কয়েকজন এলাকার বাসিন্দা। ঠিক তখনই একটি গাড়ি এসে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বেশ কয়েকজনকে ধাক্কা মেরে চলে যায়। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় একজনের। বেশ কয়েকজন জখমও হয়।

বন্ধ করুন