বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > গেরিলা কায়দায় নবান্ন অভিযানের পরিকল্পনা বিজেপি-‌র, অশান্তির ছক বাংলা জুড়ে
পশ্চিমবঙ্গে আইন-শৃঙ্খলা অবনতির ইস্যু নিয়ে ৮ অক্টোবর নবান্ন অভিযানের ডাক দিয়েছে বিজেপি।
পশ্চিমবঙ্গে আইন-শৃঙ্খলা অবনতির ইস্যু নিয়ে ৮ অক্টোবর নবান্ন অভিযানের ডাক দিয়েছে বিজেপি।

গেরিলা কায়দায় নবান্ন অভিযানের পরিকল্পনা বিজেপি-‌র, অশান্তির ছক বাংলা জুড়ে

  • আগামী ৮ অক্টোবর নবান্ন অভিযান করা হবে। কোনও বাধা মানা হবে না। গেরিলা কায়দায় অভিযান হবে বলে হুঁশিয়ারি দিলেন ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং।

পুজোর আগেই নবান্ন অভিযানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বঙ্গ–বিজেপি। ইতিমধ্যেই সেই কর্মসূচি নিয়ে হুঙ্কার দিতে শুরু করেছে তারা। ঠিক হয়েছে, আগামী ৮ অক্টোবর নবান্ন অভিযান করা হবে। সেখানে কোনও বাধা মানা হবে না। গেরিলা কায়দায় এই অভিযান হবে বলে হুঁশিয়ারি দিলেন ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং। অর্থাৎ বৃহস্পতিবার দিনটিকে কর্মনাশা করে তুলতে চাইছে বিজেপি।

রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা অবনতির ইস্যুকে নিয়ে ৮ অক্টোবর নবান্ন অভিযানের ডাক দিয়েছে বিজেপি। অথচ উত্তরপ্রদেশে যেভাবে নারীদের ওপর আক্রমণ–অত্যাচার নেমে আসছে তা নিয়ে কোনও কথা খরচ করছেন না বিজেপি নেতা–মন্ত্রী–সাংসদরা। বরং রবিবার নবান্ন অভিযান নিয়ে অর্জুন সিং বলেন, ‘‌নবান্ন অভিযানে কোনও বাধা মানা হবে না। নবান্ন ঘেরাও হবেই। আর তা যেমন করেই হোক। সেই পরিকল্পনা আগে থেকে বলা হবে না। গেরিলা কায়দায় নবান্ন অভিযান এমন হবে যে নড়ে যাবে।’‌

এদিন একই অনুষ্ঠানে যোগ দেন সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। তিনিও চ্যালেঞ্জ জানিয়ে বলেন, ‘‌খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক রিকশাওয়ালা। ওর কোনও যোগ্যতা নেই। আর কোনও কিছু করেই নবান্ন অভিযান আটকাতে পারবে না।’‌ 

অর্থাৎ বিজেপি’‌র পরিকল্পনা রাজ্যজুড়ে রণক্ষেত্র পরিস্থিতি তৈরি করা। বাস–ট্রামে আগুন জ্বালিয়ে দেওয়া এবং পুলিশের ওপর আক্রমণ করা। তাই এই হুঙ্কার বলে মনে করছেন প্রশাসনিক কর্তারা। 

এই ঘোষণার পর থেকে পুলিশ–প্রশাসনকে কড়া হাতে পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে বলা হয়েছে বলে নবান্ন সূত্রে খবর। কোনও অশান্তিতে রাজ্যের মানুষের অসুবিধা মেনে নেওয়া হবে না। তবে শান্তিপূর্ণ মিছিল করলে কোনও কিছু করা হবে না বলে সূত্রের খবর।

 

বন্ধ করুন