বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > 'গা গুলিয়ে উঠল। বমি পাচ্ছে!' আলিয়াকাণ্ড রোধে দাওয়াই বাতলালেন দেবাংশু
দেবাংশু ভট্টাচার্য, তৃণমূল নেতা

'গা গুলিয়ে উঠল। বমি পাচ্ছে!' আলিয়াকাণ্ড রোধে দাওয়াই বাতলালেন দেবাংশু

  • বাসিন্দাদের একাংশের দাবি, তৃণমূলের একাংশের প্রশয়েই গিয়াসুদ্দিনরা আজ দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ক্যাম্পাসে। শাসকদলের ছত্রছায়ায় থাকায় তাদের বিরুদ্ধে আঙুল তোলারও হিম্মত নেই কারোর।

আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে হেনস্থা করার একটি ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে সম্প্রতি। সেই ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে গিয়াসুদ্দিন নামে এক ছাত্র নেতা একেবারে অকথ্য ভাষায় শাসাচ্ছে আলিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে। এই ছবি দেখে শিউরে উঠেছে গোটা বাংলা। একজন শিক্ষককে এই ভাষায় হেনস্থা করা যায় এটা ভাবতেই পারছেন না অনেকে। এদিকে সেই ছাত্রনেতা বিগতদিনে টিএমসিপির দাপুটে ছাত্রনেতা ছিলেন। এবার এই ভিডিয়ো নিয়ে সোশ্য়াল মিডিয়ায় মুখ খুলেছেন তৃণমূল নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য। ফেসবুক পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘ভিডিয়োটা দেখে গা গুলিয়ে উঠল। বমি পাচ্ছে। আসে পাশে গভীর পচন ধরেছে। শিক্ষাগুরু সম্পর্কে এমন ভাষা! কল্পনাও করা যায়! ছিঃ!’

এরপর মোক্ষম কথা লিখেছেন তিনি। লিখেছেন, ‘অনতিবিলম্বে শিক্ষক, শিক্ষিকাদের লাঠি, বেত ফিরে আসা খুব প্রয়োজন…’ তাঁর এই ফেসবুক পোস্টের কমেন্টে একজন নেটনাগরিক লিখেছেন, লাঠিটা শিক্ষক শিক্ষিকা না রাজ্যের পুলিশের হাতে দেওয়া দরকার যেটা আমাদের সরকার চাইছে না। এই মন্তব্যের উত্তরে দেবাংশু লিখেছেন, ‘সঠিক সময় থেকে শিক্ষকের হাতে লাঠি থাকলে ভবিষ্যতে পুলিশের হাতের লাঠির দরকার পড়ে না।’

এদিকে ইতিমধ্যেই গ্রেফতার হয়েছে গিয়াসুদ্দিন। তবে বাসিন্দাদের একাংশের দাবি, তৃণমূলের একাংশের প্রশয়েই গিয়াসুদ্দিনরা আজ দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ক্যাম্পাসে। শাসকদলের ছত্রছায়ায় থাকায় তাদের বিরুদ্ধে আঙুল তোলারও হিম্মত নেই কারোর।

 

বন্ধ করুন