বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > ভোলবদলে নতুন রূপে শিয়ালদহ স্টেশন, রয়েছে রেস্তোরাঁ, শপিং মলও
শিয়ালদহ স্টেশনে সৌন্দর্যায়ন। ছবি সৌজন্য : পিটিআই (PTI)
শিয়ালদহ স্টেশনে সৌন্দর্যায়ন। ছবি সৌজন্য : পিটিআই (PTI)

ভোলবদলে নতুন রূপে শিয়ালদহ স্টেশন, রয়েছে রেস্তোরাঁ, শপিং মলও

  • শিয়ালদহ স্টেশনে একই জায়গায় সব টিকিট কাউন্টার নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে। প্ল্যাটফর্ম নম্বরও পাল্টে গিয়েছে।

‘‌এলেম নতুন দেশে’‌— এবার শিয়ালদহ স্টেশনে পা রাখলে এমনই মনে হবে সকলের। করোনাকালে ট্রেন বন্ধ, সকলে গৃহবন্দি, এই সুযোগে নিজের যত্ন নিল দেশের অন্যতম ব্যস্ত রেলস্টেশন শিয়ালদহ। আপাদমস্তক বদলে গিয়েছে এর চেহারা। এবার স্টেশনেই মিলবে পাঁচতারা হোটেলের মতো পরিষেবা। রয়েছে শপিং মল। রেস্তোরাঁয় ক্যান্ডেল লাইট ডিনার করতে চাইলে শিয়ালদহ স্টেশনেই মিলবে সেই সুযোগ।

প্রতিদিন ৯১৯টি ট্রেন ও প্রায় ১২ লক্ষ যাত্রীর চাপে শিকেয় উঠেছিল ‘স্বচ্ছ ভারত’ মিশনে শিয়ালদহ স্টেশনের আমূল বদলের কর্মসূচি। লকডাউন সেই সুযোগ করে দিয়েছে। সুসজ্জিত ফুলের টবে ভরিয়ে দেওয়া হয়েছে গোটা স্টেশন। চোখ ধাঁধিয়ে দেবে দেওয়ালে আঁকা নানা শিল্পকর্ম ও মুর‌্যাল। শপিংমল তৈরি হচ্ছে দক্ষিণ শাখার প্ল্যাটফর্মের কাছে। আর পাশেই একটি নামী সংস্থার রেস্তোরাঁ।

জানা গিয়েছে, শিয়ালদহ স্টেশনে একই জায়গায় সব টিকিট কাউন্টার নিয়ে আসার চেষ্টা চলছে। প্ল্যাটফর্ম নম্বরও পাল্টে গিয়েছে। দক্ষিণ শাখায় প্ল্যাটফর্মের নম্বর ছিল ১০এ থেকে ১৪এ। সেটি হচ্ছে ১৫ থেকে ২১। উত্তর শাখায় ১এ থেকে ৯ডি প্ল্যাটফর্ম এবার হচ্ছে ১ থেকে ১৪।

আগেই তৈরি করা হয় এগজিটিউটিভ লাউঞ্জ। সেটি এই ফাঁকে আরও সাজিয়ে তোলা হয়েছে। জানা গিয়েছে, বিলাসবহুল লাউঞ্জে এক ঘণ্টা সময় কাটাতে লাগবে মাত্র ৫০ টাকা। ট্রেন ধরতে এসে অপেক্ষা করার জন্য আর মেঝেতে কাগজ বিছিয়ে থাকতে হবে না। বেশি সময় কাটানোর জন্য এসি সুইট, এসি ডরমেটরি, ২ শয্যা, ৪ শয্যা রুমেরও ব্যবস্থা করা হয়েছে। ১২ এবং ২৪ ঘণ্টা তাতে থাকা যাবে। ভাড়া ৫০০ থেকে ৩ হাজার টাকার মধ্যে।

বন্ধ করুন