বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ‘গেরুয়া রঙের অন্তর্বাস’, হাইকোর্টের বিচারপতিদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য PFI নেতার

‘গেরুয়া রঙের অন্তর্বাস’, হাইকোর্টের বিচারপতিদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য PFI নেতার

হাইকোর্টের বিচারপতিদের নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য PFI নেতার

এর আগে কেরল হাইকোর্ট ২১ মে আলাপ্পুঝায় সমাবেশের সাথে সম্পর্কিত উস্কানিমূলক স্লোগান জন্য পপুলার ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছিল।

কেরল পপুলার ফ্রন্ট (পিএফআই) নেতা ইয়াহিয়া টাঙ্গল হাই কোর্টের বিচারকদের বিরুদ্ধে বিতর্কিত মন্তব্য করে খবরের শিরোনামে এসেছেন। তিনি বলেন, বিচারপতিদের অন্তর্বাস গেরুয়া রঙের। আলাপ্পুঝার সমাবেশে টাঙ্গল বলেন, ‘আদালত এখন সহজেই হতবাক হয়ে যায়। হাইকোর্টের বিচারপতিরা আমাদের আলাপ্পুঝার সমাবেশের স্লোগান শুনে হতবাক। কারণটা কী জানেন? কারণ হল তাঁদের অন্তর্বাস গেরুয়া রঙের। যেহেতু এতে গেরুয়া রঙ আছে, এগুলো খুব দ্রুত গরম হয়ে যায়।’

আলাপ্পুঝার এক পিএফআই সমাবেশের ভাইরাল ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে একটি ছেলেকে স্লোগান দিতে শোনা যায় - 'হিন্দুদের তাদের শেষ আচারের জন্য ভাত রাখা উচিত এবং খ্রিস্টানদের তাদের শেষ আচারের জন্য ধূপ রাখা উচিত'। সেই যুবককে আরও বলতে শোনা যায়, ‘আপনি যদি শালীনভাবে বাস করেন তবে আপনি আমাদের দেশে থাকতে পারেন এবং আপনি যদি শালীনভাবে না বাস করেন তবে আমরা স্বাধীনতা ছিনিয়ে নিতে জানি।’

ভাইরাল ভিডিয়োর সেই যুবকেল স্লোগানকে সাম্প্রদায়িক আখ্যা দেওয়া হয়েছিল। কেরলে বসবাসকারী হিন্দু এবং খ্রিস্টান জনগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে সরাসরি হুমকি হিসাবে দেখা হয়েছিল। পিএফআই হুঁশিয়ারি দিয়েছিল যে হিন্দু ও খ্রিস্টানরা ‘লাইনে না এলে’ তাঁদের মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হবে। এই ভাইরাল ভিডিয়োর প্রেক্ষিতে শুক্রবার কেরল পুলিশ পিএফআই-এর ১৮ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল।

এর আগে কেরল হাইকোর্ট ২১ মে আলাপ্পুঝায় সমাবেশের সাথে সম্পর্কিত উস্কানিমূলক স্লোগান জন্য পপুলার ফ্রন্ট অফ ইন্ডিয়ার বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছিল। এই প্রসঙ্গে পিএফআই রাজ্য সভাপতি সিপি মুহাম্মদ বশির মঙ্গলবার বলেছিলেন যে এই স্লোগান রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের (আরএসএস) বিরুদ্ধে। তিনি বলেছিলেন যে তাঁর দল আরএসএস-এর সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যাবে এবং বিরোধিতা করবে।

বন্ধ করুন