বাংলা নিউজ > ময়দান > জীবনে মাত্র ৯ বল করেছিলেন, পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৪ উইকেট নিলেন সেই উইকেটকিপারই!
১০ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে চার উইকেট নেন নিকোলাস পুরান। (ছবি সৌজন্যে, টুইটার ICC)

জীবনে মাত্র ৯ বল করেছিলেন, পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৪ উইকেট নিলেন সেই উইকেটকিপারই!

  • PAK vs WI: পাকিস্তানের বিরুদ্ধে তৃতীয় একদিনের ম্যাচে নামার আগে সবধরনের ক্রিকেটে (প্রথম শ্রেণি, লিস্ট 'এ' এবং টি-টোয়েন্টি মিলিয়ে) মাত্র ন'বল করেছিলেন ওই উইকেটকিপার। সেই নিকোলাস পুরানই পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ১০ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে চার উইকেট নিলেন।

স্বপ্নের ইনিংসের আগে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে মাত্র তিনটি বল করেছিলেন। সবধরনের ক্রিকেট (প্রথম শ্রেণি, লিস্ট 'এ' এবং টি-টোয়েন্টি মিলিয়ে) সেই সংখ্যাটা ছিল নয়। রবিবার সেই নিকোলাস পুরানই পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ১০ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে চার উইকেট নিলেন।

রবিবার মুলতানে টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় পাকিস্তান। ধুলোঝড়ের কারণে ৪৮ ওভারের ম্যাচ হয়। সেইসবের মধ্যেই শুরুটা দারুণ করে পাকিস্তান। প্রথম উইকেটে ৮৫ রান যোগ করেন ফখর জামান এবং ইমাম-উল-হক। তাঁদের জুটি ভাঙেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের অধিনায়ক পুরান। আউট করেন ফখরকে।

কয়েক ওভার পর পুরানের শিকার হন অপর ওপেনার ইমাম। সেই ওভারেই মহম্মদ হ্যারিসকে প্যাভিলিয়নে ফেরতে পাঠান। পরের ওভারেই আউট করেন মহম্মদ রিজওয়ানকে। যে পুরান উইকেটকিপিংও করেন। তবে সাই হোপ উইকেটরক্ষকের দায়িত্ব সামলান।

পুরানের সেই স্বপ্নের স্পেলের সুবাদে ৩০০ রানের গণ্ডি পার করতে পারেনি পাকিস্তান। ৪৮ ওভারে ন'উইকেটে ২৬৯ রান তোলেন বাবর আজমরা। সেই রানটাই অবশ্য জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিল। ডাকওয়ার্ক লুইস মেথডে ৫৩ রানে জিতে যায় পাকিস্তান।

আরও পড়ুন: এক ম্যাচেও খেলায়নি KKR, সেই তারকাই জেতাচ্ছেন দেশকে! ২২ বলে করলেন ৪৩, পেলেন উইকেট

ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে সেভাবে কেউ দাঁড়াতে পারেননি। টপ ও মিডল অর্ডারে বড় কোনও পার্টনারশিপ হয়নি। একমাত্র একা কুম্ভ হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন আকিল হোসেন। ৩৭ বলে ৬০ রান করেন তিনি। কিন্তু তা যথেষ্ট ছিল না। ৩৭.২ ওভারে ২১৬ রানে অল-আউট হয়ে যান ক্যারিবিয়ানরা। তার ফলে ৩-০ ব্যবধানে একদিনের সিরিজ জিতে নেয় পাকিস্তান।

বন্ধ করুন