বাংলা নিউজ > ময়দান > ফুটবল > লাল-হলুদে সই করে ইউরোপা লিগে খেলা ফুটবলারের হুঙ্কার, ‘সব ম্যাচ জেতাতে চাই’
ড্যানিয়েল চিমা।

লাল-হলুদে সই করে ইউরোপা লিগে খেলা ফুটবলারের হুঙ্কার, ‘সব ম্যাচ জেতাতে চাই’

  • ইউরোপা লিগে খেলা এবং তারকা ফুটবলার এরলিং হালান্ডের সতীর্থকে সই করিয়ে আরও বড় চমক দিল লাল-হলুদ। এই নিয়ে মোট চার জন বিদেশিকে সই করিয়ে ফেলল এসসি ইস্টবেঙ্গল। আমির ডেরভিসেভিচ, টমিস্লাভ মর্সেলা, ফ্রাঞ্জো প্রসের পর এ বার ড্যানিয়েল চিমাকে এক বছরের চুক্তিতে সই করল এসসি ইস্টবেঙ্গল।

দল গঠনের কাজ সবার শেষে শুরু করলে কী হবে, একের পর এক হাই প্রোফাইল বিদেশি সই করিয়ে চমক দিয়ে চলেছে এসসি ইস্টবেঙ্গল। এ বার ইউরোপা লিগে খেলা এবং তারকা ফুটবলার এরলিং হালান্ডের সতীর্থকে সই করিয়ে আরও বড় চমক দিল লাল-হলুদ। এই নিয়ে মোট চার জন বিদেশিকে সই করিয়ে ফেলল এসসি ইস্টবেঙ্গল।

আমির ডেরভিসেভিচ, টমিস্লাভ মর্সেলা, ফ্রাঞ্জো প্রসের পর এ বার ড্যানিয়েল চিমাকে এক বছরের চুক্তিতে সই করল এসসি ইস্টবেঙ্গল। নিজের ফুটবল জীবনে ৯০টির বেশি গোল করেছেন। ৪০টিরও বেশি গোলে সহায়তা করেছেন। সেই ড্যানিয়েল চিমা সই করেই দাবি করেছেন, এসসি ইস্টবেঙ্গলকে সব ম্যাচ জেতাতে তৈরি চিমা।

এ দিন ক্লাবের তরফে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে জানানো হয়, তিন বার নরওয়ের প্রথম ডিভিশনের লিগজয়ী ড্যানিয়েল চিমা সই করলেন এসসি ইস্টবেঙ্গলে। সেই পোস্টে লেখা রয়েছে, ‘চিমা ইজ ব্যাক’। ৫ ফুট ১১ ইঞ্চির  ৩০ বছরের নাইজেরিয়ার স্ট্রাইকার ইস্টবেঙ্গলে আসতে চলেছেন, তা একপ্রকার নিশ্চিতই ছিল। ক্লাবের ঘোষণার পর এদিন তাতেই সিলমোহর পড়ল।

সই করেই এসসি ইস্টবেঙ্গল মিডিয়াকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে চিমা বলেছেন, ‘এ রকম ঐতিহ্যশালী ক্লাবে সই করে আমি খুব খুশি। আমি যত বেশি সম্ভব ম্যাচ জিতিয়ে ইস্টবেঙ্গলকে সাহায্য করতে চাই।’ তিনি আরও বলেছেন, ‘আমি নরওয়েতে একাধিক খেতাব জিতেছি এবং ফুটবল জগতের বেশ কিছু সেরা কোচের অধীনে খেলেছি। আমি আমার এই অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগাব। সেই সঙ্গে আমার সতীর্থদের উন্নতিতে সাহায্য করার চেষ্টা করব। আমাদের কোচিং স্টাফের সঙ্গে কাজ করার জন্যও মুখিয়ে রয়েছি আমি। এক নতুন চ্যালেঞ্জের অপেক্ষায় রয়েছি, আর ভারতে আসার জন্য আমি উত্তেজিত হয়ে রয়েছিষ  ইন্ডিয়ান সুপার লিগের উন্নতি হচ্ছে এবং আমার মনে হয়, এখানে আসার সিদ্ধান্তটা সঠিক।’