বাংলা নিউজ > ময়দান > ICC Men's ODI Team of the Year: নেতা বাবর, বর্ষসেরা ODI দলে সিরাজ-সহ ২ ভারতীয়, আছেন ১ বাংলাদেশি, নজির সিকন্দরের

ICC Men's ODI Team of the Year: নেতা বাবর, বর্ষসেরা ODI দলে সিরাজ-সহ ২ ভারতীয়, আছেন ১ বাংলাদেশি, নজির সিকন্দরের

বাবর আজম, মহম্মদ সিরাজ এবং মেহদি হাসান মিরাজ। (ফাইল ছবি, সৌজন্যে এপি এবং এএনআই)

ICC Men's ODI Team of the Year: ভারত, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজেরও দু'জন করে ক্রিকেটারকে সেই দলে রাখা হয়েছে। আছেন বাংলাদেশের এক তারকাও। তারইমধ্যে বিশেষ নজির গড়েছেন সিকন্দর রাজা।

আইসিসির বর্ষসেরা একদিনের দলে (পুরুষ) জায়গা পেলেন দুই ভারতীয়। অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজেরও দু'জন করে ক্রিকেটারকে সেই দলে রাখা হয়েছে। সেইসঙ্গে পাকিস্তানের বাবর আজমের নেতৃত্বাধীন সেই দলে ঠাঁই হয়েছে বাংলাদেশের তারকা মেহদি হাসান মিরাজের। 

তারইমধ্যে বিশেষ নজির গড়েছেন সিকন্দর রাজা। এবার আইসিসির বর্ষসেরা টি-টোয়েন্টি দলে আছেন জিম্বাবোয়ের তারকা। সঙ্গে একদিনের দলেও জায়গা পেয়েছেন। এবার তিনিই একমাত্র খেলোয়াড়, যিনি সাদা বলের দুই ফর্ম্যাটের বর্ষসেরা দলে আছেন। বাকি যে ১০ জন একদিনের বর্ষসেরা দলে আছেন, তাঁরা টি-টোয়েন্টি দলে ঠাঁই পাননি।

আরও পড়ুন: ICC Men's T20I team of the year: SKY-র সামনে নত ICC-র! বর্ষসেরা T20 দলে বিরাট-সহ ৩ ভারতীয়, ঠাঁই সিকন্দর-লিটলেরও

৫০ ওভারের ক্রিকেটে আইসিসি বর্ষসেরা দল (পুরুষ)

১) বাবর আজম (পাকিস্তান) (অধিনায়ক): ২০২২ সালে ন'টি একদিনের ম্যাচের মধ্যে আটটিতেই ৫০ রান বা তার বেশি করেন। তিনটি শতরান হাঁকান। ২০২২ সালে মোট ৬৭৯ রান করেন। গড় ৮৪.৮৭। সেইসঙ্গে অধিনায়ক হিসেবে গত বছরে তিনটি একদিনের সিরিজেই পাকিস্তানকে জেতান বাবর। 

২) ট্র্যাভিস হেড (অস্ট্রেলিয়া): ন'টি ম্যাচে ৫৫০ রান করেন। গড় ছিল ৬৮.৭৫। স্ট্রাইক রেট ১১২.২৪। দুটি শতরান এবং তিনটি অর্ধশতরান করেন।

৩) শাই হোপ (ওয়েস্ট ইন্ডিজ): ৭০৯ রান করেন। গড় ছিল ৩৫.৪৫। তিনটি শতরান এবং দুটি অর্ধশতরান করেন।

৪) শ্রেয়স আইয়ার (ভারত): গত বছর ভারতের একদিনের দলের মিডল-অর্ডারের অন্যতম স্তম্ভ হয়ে উঠেছেন। ১৭ ম্যাচে খেলেছেন। ৭২৪ রান করেছেন। গড় ৫৫.৬৯। স্ট্রাইক রেট ৯১.৫২। 

৫) টম লাথাম (নিউজিল্যান্ড) (উইকেটকিপার): ১৫ ম্যাচে ৫৫৮ রান করেন। গড় ৫৫.৮। স্ট্রাইক রেট ছিল ৫৫.৮। দুটি অর্ধশতরান এবং দুটি শতরান করেন।

৬) সিকন্দর রাজা (জিম্বাবোয়ে): ২০২২ সালে অবিশ্বাস্য ছন্দে ছিলেন সিকন্দর। ৬৪৫ রান করেন। গড় ৪৯.৬১। স্ট্রাইক রেট ৮৭.১৬। তিনটি শতরান এবং দুটি অর্ধশতরান করেন। আটটি উইকেটও নেন। ইকোনমি রেট পাঁচের ঘরে ছিল।

৭) মেহদি হাসান মিরাজ (বাংলাদেশ): গত বছর একদিনের ক্রিকেটের অন্যতম ভরসাযোগ্য অল-রাউন্ডার হয়ে উঠেছেন। ১৫ ম্যাচে ২৪ উইকেট নেন। গড় ছিল ২৮.২। সেইসঙ্গে ব্যাট হাতে ৩৩০ রান করেন। গড় ছিল ৬৬। একটি শতরান ও একটি অর্ধশতরান করেন।

৮) আলজারি জোসেফ (ওয়েস্ট ইন্ডিজ): ২০২২ সালে ১৭ ম্যাচে ২৭ উইকেট নেন। গড় ২৫.৭। স্ট্রাইক রেট ৩৩.৪। ইকোনমি রেট ৪.৬১।

আরও পড়ুন: IND vs NZ 3rd ODI Live: রোহিত-গিলের ওপেনিং জুটিতে দাপুটে শুরু ভারতের

৯) মহম্মদ সিরাজ (ভারত): ২০২২ সালে একদিনের ক্রিকেটে ভারতের অন্যতম অস্ত্র ওঠেন সিরাজ। জসপ্রীত বুমরাহের অনুপস্থিতিতে নিজেকে দারুণভাবে মেলে ধরেন। ১৫ ম্যাচে ২৪ উইকেট নেন। ইকোনমি রেট ছিল মাত্র ৪.৬২। গড় ২৩.৫। সেইসঙ্গে নতুন ও পুরনো - দুই ধরনের বলেই নিজের জাত চিনিয়েছেন।

১০) ট্রেন্ট বোল্ট (নিউজিল্যান্ড): ২০২২ সালে মাত্র ছ'টি ম্যাচ খেলেন। ১৮ উইকেট নেন। গড় ১২.৩৮। ইকোনমি রেট ৩.৯৮। 

১১) অ্যাডাম জাম্পা (অস্ট্রেলিয়া): ১২ ম্যাচে ৩০ উইকেট নেন। তাও ন'টি ম্যাচ নিজের দেশের মাটিতে খেলেন। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে একদিনের ম্যাচে সর্বোচ্চ উইকেটশিকারী হন জাম্পা।

(এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup)

বন্ধ করুন