বাংলা নিউজ > ময়দান > আমার কোনও ধারণা নেই- হার্দিকের আশায় কার্যত জল ঢেলে দিলেন রাহুল দ্রাবিড়

আমার কোনও ধারণা নেই- হার্দিকের আশায় কার্যত জল ঢেলে দিলেন রাহুল দ্রাবিড়

রাহুল দ্রাবিড় এবং রোহিত শর্মা।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ভারত ছিটকে যাওয়ার পর থেকে বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মা এবং কেএল রাহুল আর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের কোনও ম্যাচ খেলেননি। ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ততম সংস্করণে দেশকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন হার্দিক পাণ্ডিয়া। শোনা যাচ্ছে, আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নাকি হার্দিকের নেতৃত্বেই খেলতে নামবে ভারত।

ভারতীয় ক্রিকেট দলে এই মুহূর্তে অন্যতম আলোচনার বিষয় হল, ভিন্ন ফর্ম্যাটে ভিন্ন অধিনায়কের নীতি। ইতিমধ্যেই রোহিত শর্মাকে বিশ্রাম দিয়ে, টি-টোয়েন্টিতে হার্দিক পাণ্ডিয়াকে নেতৃত্বের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এবং তাতে সফলও হচ্ছেন হার্দিক। হার্দিকই আপাতত সাদা-বলের অধিনায়ক হিসেবে বিসিসিআই-এর ভাবনায় রয়েছেন। তবে নেতৃত্ব ভাগাভাগির খবর টিম ইন্ডিয়ার হেড কোচ রাহুল দ্রাবিড়ের কাছে নেই বললেই জানিয়েছেন।

এটা ঘটনা, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ভারত ছিটকে যাওয়ার পর থেকে বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মা এবং লোকেশ রাহুল আর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের কোনও ম্যাচ খেলেননি। ক্রিকেটের সংক্ষিপ্ততম সংস্করণে দেশকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন হার্দিক পাণ্ডিয়া। শোনা যাচ্ছে, আগামী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নাকি হার্দিকের নেতৃত্বেই খেলতে নামবে ভারত।

আরও পড়ুন: কোহলির T20 ভবিষ্যত নিয়ে প্রশ্ন মাঝপথে থামিয়ে অবাক করা জবাব দ্রাবিড়ের- ভিডিয়ো

ইন্দোরে ভারত-নিউজিল‌্যান্ড ওয়ান ডে কার্যত নিয়মরক্ষার। রায়পুরে ব্ল‌্যাক ক‌্যাপসদের গুঁড়িয়ে সিরিজ জিতে নিয়েছে ভারত। তাই সোমবার ম‌্যাচের আগে সাংবাদিক সম্মেলনে অন্য বিষয় নিয়েই বেশি আলোচনা হয়। দ্রাবিড়কে এ দিন সাংবাদিক সম্মেলনে জিজ্ঞাসা করা হয়, নেতৃত্ব ভাগাভাগি হয়ে গিয়েছে কি না? রাহুল দ্রাবিড় অবশ্য বলছেন, ‘‌নেতৃত্ব ভাগাভাগির খবর আমার কাছে অন্তত নেই। এই প্রশ্নটা বরং নির্বাচকদের করুন। আমার কাছে এখনও পর্যন্ত এ রকম কোনও খবর নেই।’‌

তবে এটা ঘটনা কিছুদিন আগে কোচ দ্রাবিড় স্বয়ং বলেছিলেন যে, টি-টোয়েন্টি দল ঢেলে সাজানো হবে। তরুণদের সুযোগ দেওয়া হবে লম্বা সময় ধরে। ভারতীয় কোচের কথাবার্তা শুনে অনেকেই ভেবেছিলেন যে, এর পর কোহলি-রোহিতদের আর হয়তো খেলতে না-ও দেখা যেতে পারে টি-টোয়েন্টি টিমের হয়ে। তার কিছু দিন পর আবার রোহিত বলেন, ‘‌আইপিএলের পর বিষয়টা নিয়ে ভাবা যাবে।’‌ তবে রাহুল বক্তব্য পাল্টানোয় পুরো ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে।

আরও পড়ুন: স্মৃতি-হরমন ঝড়, ভারতীয় বোলারদের ক্লিনিক্যাল পারফরম্যান্স, উড়ে গেল ওয়েস্ট ইন্ডিজ

বিরাটের টি-টোয়েন্টি ভবিষ্যৎ নিয়েও মুখ খুলেছেন দ্রাবিড়। বলেছেন, ‘‌সাদা বলের ক্রিকেটে আমরা কিছু বিষয়কে প্রাধান্য দিয়ে চলেছি। একদিকে রয়েছে প্রচুর ক্রিকেট। গুরুত্বপূর্ণ সিরিজের জন্য ক্রিকেটারদের প্রস্তুত রাখতে হচ্ছে। ওয়ার্কলোড ম্যানেজমেন্টের কথাও মাথায় রাখতে হচ্ছে।’‌ এরপরই দ্রাবিড়ের সংযোজন, ‘‌বিরাট টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ছ’‌টি ম্যাচই খেলেছিল। দুর্দান্ত খেলেছে। তারপর বিরাট, রোহিত সহ কিছু ক্রিকেটারকে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছিল। ফিরে এসে তারা কিন্তু রানের মধ্যেই রয়েছে।’‌

নিউজিল্যান্ড সিরিজের পরেই রয়েছে বর্ডার-গাভাসকর ট্রফি। অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে চারটি টেস্ট ম্যাচ খেলবে ভারত। বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে পৌঁছতে এই সিরিজ খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

বন্ধ করুন