বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘‌বিজেপিতে থাকলে ২০২৪ সালে উনি বড় নেতা হতে পারবেন’‌, প্রতিশ্রুতি অর্জুনের
ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং। ফাইল ছবি
ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং। ফাইল ছবি

‘‌বিজেপিতে থাকলে ২০২৪ সালে উনি বড় নেতা হতে পারবেন’‌, প্রতিশ্রুতি অর্জুনের

  • এবার এই পরিস্থিতিতে ডোমজুড়ের বিজেপি প্রার্থীকে তীব্র আক্রমণ করলেন অর্জুন সিং। দিলেন পরামর্শও।

রাজীব বন্দ্যোপাধায়ের সাম্প্রতিক ফেসবুক পোস্ট গেরুয়া শিবিরে ঝড় তুলেছিল। আর অক্সিজেন পেয়েছিল তৃণমূল কংগ্রেস। এটা অনেক বিজেপি নেতা যেমন সহ্য করতে পারেননি তেমনই মেনে নিতে পারেননি তৃণমূল কংগ্রেস ছেড়ে যাঁরা বিজেপি নেতা হয়েছেন। এবার এই পরিস্থিতিতে ডোমজুড়ের বিজেপি প্রার্থীকে তীব্র আক্রমণ করলেন অর্জুন সিং। দিলেন পরামর্শও। বিজেপি সাংসদের কটাক্ষ, ‘‌রাজীব চিরকালই ক্ষমতায় থাকতে পছন্দ করেন।’‌ এই কথা তিনি বললেও একটু পেছনে গেলেই দেখা যাবে লোকসভা নির্বাচনের টিকিট পাননি বলেই মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ি থেকে বেরিয়ে দিল্লির বিমান ধরে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন। ক্ষমতায় থাকতে তিনিও ভালোবাসেন বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা।

বুধবার দিল্লিতে পৌঁছেছেন তিন সাংসদ। অর্জুন সিং, নিশীথ প্রামাণিক এবং সৌমিত্র খাঁ। আর সেখান থেকে অর্জুনের কটাক্ষ, ‘‌রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় চিরকাল ক্ষমতায় থাকতে পছন্দ করেন। তবে তাঁর তৃণমূল কংগ্রেসে যাওয়া উচিত হবে না। যদি যান তাহলে ভুল করবেন। তবে বিজেপিতে থাকলে আখেরে রাজীবের লাভই হবে। বিজেপিতে থাকলে ২০২৪ সালে উনি বড় নেতা হতে পারবেন। তাই এখন উচিত হাওড়ার মানুষের পাশে থাকা।’‌ আসলে হাওড়ায় বিজেপির তেমন সংগঠন নেই। যা গড়ে উঠেছিল, সেটা একুশের নির্বাচনের পর শেষ হয়ে গিয়েছে। তাই এখন প্রতিশ্রুতি দিয়ে রাজীবকে আটকে রাখার কৌশল নিয়েছেন তিনি বলে মনে করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, হেস্টিংসে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকেও যোগ দেননি রাজীব। তার মধ্যেই কার্যত শুভেন্দু অধিকারীর মন্তব্যের বিপক্ষে গিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় কড়া পোস্ট করেন তিনি। তিনি লেখেন, ‘মানুষের বিপুল জনসমর্থন নিয়ে আসা নির্বাচিত সরকারের সমালোচনা ও মুখ্যমন্ত্রীর বিরোধিতা করতে গিয়ে কথায় কথায় দিল্লি আর ৩৫৬ ধারার জুজু দেখালে বাংলার মানুষ ভাল ভাবে নেবে না।’ তারপরই রাজীবকে তীব্র আক্রমণ করেছেন সৌমিত্র খাঁ, লকেট চট্টোপাধ্যায়–সহ আরও অনেকে। এবার তাঁকে নিশানা করলেন অর্জুন সিং।

বন্ধ করুন