বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘তৃণমূল নেতাদের বেশি পাত্তা দিতেন না’, ৯ মাসের মাথায় বদলি নন্দীগ্রাম থানার আইসি
তুহিন বিশ্বাস।

‘তৃণমূল নেতাদের বেশি পাত্তা দিতেন না’, ৯ মাসের মাথায় বদলি নন্দীগ্রাম থানার আইসি

  • গত বছর বিধানসভা নির্বাচনে নন্দীগ্রামে শুভেন্দু অধিকারীর কাছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হারের পর রাজনৈতিক হিংসার অভিযোগ ওঠে। তখনই নন্দীগ্রাম থানার ওসির ওপরে আইসি হিসাবে বসানো হয়েছিল তুহিন বিশ্বাসকে।

বদলি হলেন পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দীগ্রাম থানার আইসি তুহিন বিশ্বাস।  জেলা পুলিশ সূত্রে এই খবর জানা গিয়েছে। ৯ মাসের মাথায় তাঁরে সরিয়ে দিল রাজ্য সরকার। যা নিয়ে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানউতোর।

গত বছর বিধানসভা নির্বাচনে নন্দীগ্রামে শুভেন্দু অধিকারীর কাছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হারের পর রাজনৈতিক হিংসার অভিযোগ ওঠে। তখনই নন্দীগ্রাম থানার ওসির ওপরে আইসি হিসাবে বসানো হয়েছিল তুহিন বিশ্বাসকে। শুক্রবার তাঁকে হাওড়া জিআরপিতে বদলি করা হয়েছে। তাঁর জায়গায় নন্দীগ্রাম থানার আইসি হয়েছেন তমলুক জেলা আদালতের ইন্সপেক্টর সুমন রায়চৌধুরী।

পুরভোটে সন্ত্রাসের অভিযোগে গত ২৮ ফেব্রুয়ারি বাংলা বনধ ডাকে বিজেপি। সেই বনধ ব্যর্থ করতে তুহিনবাবু নিজে ময়দানে নামেন বলে অভিযোগ। বিজেপির দাবি, এলাকার তৃণমূল নেতাদের সঙ্গে বনিবনা ছিল না তুহিনবাবুর। দুর্নীতিগ্রস্ত নেতাদের বিশেষ পাত্তা দিতেন না তিনি। তাই তাঁকে বদলি করা হয়েছে।

অভিযোগ অস্বীকার করে তৃণমূল নেতা শেখ সুফিয়ান বলেন, ‘এটা প্রশাসনিক সিদ্ধান্ত। এর পিছনে রাজনৈতিক কারণ খোঁজা অর্থহীন।’ বিজেপি নেতা প্রলয় পালের দাবি, ‘বিজেপি কর্মীদের বিরুদ্ধে যথেষ্ট পরিমাণে ভুয়ো মামলা দিয়েছেন তুহিনবাবু। যিনি আসছেন তিনিও দেবে। এতে আমাদের কিছু যায় আসে না।’

 

বন্ধ করুন