বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > দেখব কত বোমা আছে? পঞ্চায়েতে তৃণমূলকে রুখতে বড় ডাক দিলেন ISF বিধায়ক

দেখব কত বোমা আছে? পঞ্চায়েতে তৃণমূলকে রুখতে বড় ডাক দিলেন ISF বিধায়ক

ভাঙড়ের বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি। ছবি সৌজন্য–এএনআই।

তাৎপর্যপূর্ণভাবে বিজেপি নেতৃত্ব নওশাদের বার্তাকেই সমর্থন করেছে। কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবি করেছেন বিজেপি নেতৃত্ব। আর আইএসএফের হুঁশিয়ারি প্রসঙ্গে তৃণমূল নেতৃত্বের দাবি, এই সমস্ত হুঁশিয়ারি বা হুমকিতে তৃণমূল ভয় পায় না। বিধায়ক রাজনীতির কিছুই জানেন না।

সামনেই পঞ্চায়েত নির্বাচন। অশান্তির আশঙ্কা করছেন অনেকেই। তার আগেই হামলা প্রতিরোধের পালটা ডাক দিলেন ভাঙরের আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি। কার্যত শাসকের চোখে চোখ রেখে হুঁশিয়ারি।

মধ্যমগ্রামে দলীয় সভায় তিনি সাফ জানিয়ে দেন, দেখব কত তোমার বোমা-গুলি আছে। আমরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে ভোট দেব। ভোট দিয়ে ঘুমিয়ে পড়লে হবে না। গণনাকেন্দ্রের বাইরে দুদিন, তিনদিন হোক, যতদিন হোক ব্যালট বাক্সগুলি থাকবে আমরা সাধারণ মানুষ, আইএসএফ কর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্যান্ডেল করে থেকে আমরা আমাদের ভোট পাহারা দেব।

এদিকে তাৎপর্যপূর্ণভাবে বিজেপি নেতৃত্ব নওশাদের বার্তাকেই সমর্থন করেছে। কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবি করেছেন বিজেপি নেতৃত্ব। আর আইএসএফের হুঁশিয়ারি প্রসঙ্গে তৃণমূল নেতৃত্বের দাবি, এই সমস্ত হুঁশিয়ারি বা হুমকিতে তৃণমূল ভয় পায় না। বিধায়ক রাজনীতির কিছুই জানেন না।

ফেব্রুয়ারি বা এপ্রিলে হতে পারে পঞ্চায়েত ভোট। তার আগেই শুরু হয়ে গিয়েছে রাজনৈতিক তরজা। সুর চড়াচ্ছে দুপক্ষই। তবে এবার তাৎপর্যপূর্ণভাবে প্রতিরোধের ডাক দিচ্ছেন বিরোধীরা। তার সঙ্গেই যুক্ত হচ্ছে ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিরোধ করার ডাক।কিন্তু বাস্তবে দুর্বল সংগঠন নিয়ে বিরোধীরা কতটা প্রতিরোধের রাস্তায় নামতে পারবেন তা নিয়ে সংশয়টা থেকেই গিয়েছে। তবে রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, এবারও ভোটে অশান্ত হতে পারে বাংলা। তারই ইঙ্গিত মিলতে শুরু করেছে।

বন্ধ করুন