বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মিলল না পুলিশের অনুমতি, দিলীপ জানালেন কাল কলকাতা পুরসভা ঘেরাও হবেই
দলের রাজ্য দফতরে সাংবাদিক বৈঠকে দিলীপ ঘোষ। ফাইল ছবি
দলের রাজ্য দফতরে সাংবাদিক বৈঠকে দিলীপ ঘোষ। ফাইল ছবি

মিলল না পুলিশের অনুমতি, দিলীপ জানালেন কাল কলকাতা পুরসভা ঘেরাও হবেই

  • রাজ্যে করোনার বিধিনিষেধ ঠিক করে মানা হচ্ছে না বলে অভিযোগ করে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘কোথায় মহামারি আইন? সব তো স্বাভাবিক। রাস্তায় গাড়িঘোড়া চলছে। তৃণমূল থেকে শুরু করে সব রাজনৈতিক দল কর্মসূচি পালন করছে। সেখানে মহামারি আইন বলে কিছু আছে কি?

পুলিশ অনুমতি না দিলেও সোমবার বিজেপির কলকাতা পুরসভা ঘেরাও কর্মসূচি হবেই। রবিবার দলীয় কার্যালয়ে এক সাংবাদিক বৈঠকে এমনই জানালেন দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিন তিনি বলেন, ‘তৃণমূল বা অন্য কোনও রাজনৈতিক দল কর্মসূচি পালন করলে কোনও সমস্যা নেই। যত সমস্যা বিজেপির বেলায়।’

এদিন এক প্রশ্নের উত্তরে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘পুলিশের ইচ্ছায় তো আমরা কর্মসূচির আয়োজন করিনি। সাধরণ মানুষের ওপরে যে অন্যায়-অত্যাচার হচ্ছে তার প্রতিবাদ করার অধিকার বিরোধীদের রয়েছে। পুলিশ তার কাজ করবে, আমরা আমাদের দায়িত্ব পালন করবো। সোমবার বিজেপির কলকাতা পুরসভা ঘেরাও কর্মসূচি হবেই’।

রাজ্যে করোনার বিধিনিষেধ ঠিক করে মানা হচ্ছে না বলে অভিযোগ করে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘কোথায় মহামারি আইন? সব তো স্বাভাবিক। রাস্তায় গাড়িঘোড়া চলছে। তৃণমূল থেকে শুরু করে সব রাজনৈতিক দল কর্মসূচি পালন করছে। সেখানে মহামারি আইন বলে কিছু আছে কি? দুমাস ধরে সরকারের উপস্থিতি টের পাওয়া যাচ্ছে না। রাজ্যে আইনশৃঙ্খলা বলে কিছু নেই। আদালতের নির্দেশের পরেও সরকার আছে যে তা টের পাওয়া যাচ্ছে না’।

বলে রাখি, ভুয়ো টিকাকাণ্ডের প্রতিবাদে সোমবার কলকাতা পুরসভা ঘেরাওয়ের ডাক দিয়েছে বিজেপি। তাদের দাবি, এই দুর্নীতিতে সরাসরি যুক্ত কলকাতা পুরসভার কর্তাব্যক্তিরা। সোমবার বিজেপির কর্মসূচির অনুমতি দেয়নি কলকাতা পুলিশ। করোনার বিধিনিষেধ লাগু থাকায় রাজনৈতিক কর্মসূচিতে ৫০ জনের বেশি জমায়েতের অনুমতি দেওয়া যাবে না বলে জানিয়েছে তারা।

 

বন্ধ করুন