বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মহিলা ভোটারদের মন জিততে একগুচ্ছ পরিকল্পনা কংগ্রেসের, নিয়োগ হচ্ছে পর্যবেক্ষক
মহিলাদের ভোট টানতে একগুচ্ছ পরিকল্পনা কংগ্রেসের, নিয়োগ হচ্ছে পর্যবেক্ষক। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
মহিলাদের ভোট টানতে একগুচ্ছ পরিকল্পনা কংগ্রেসের, নিয়োগ হচ্ছে পর্যবেক্ষক। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

মহিলা ভোটারদের মন জিততে একগুচ্ছ পরিকল্পনা কংগ্রেসের, নিয়োগ হচ্ছে পর্যবেক্ষক

  • আগামী যে রাজ্যগুলিতে বিধানসভা নির্বাচন হবে, সেখানে মহিলা ভোটারদের উৎসাহিত করে নির্বাচনে বাজিমাত করতে চাইছে কংগ্রেস।

মহিলা ভোটারদের সংখ্যা বাড়াতে চায় কংগ্রেস। বিহার বিধানসভা নির্বাচনে ধাক্কা খাওয়ার পর এই পরিকল্পনা করেছে কংগ্রেস। আগামী যে কয়েকটি রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন হবে সেখানে মহিলা ভোটারদের উৎসাহিত করে নির্বাচনে বাজিমাত করতে চাইছে কংগ্রেস বলে খবর। চলতি বছরে তামিলনাড়ু, পশ্চিমবঙ্গ, অসম, পদুচেরি ও কেরলে বিধানসভা নির্বাচন রয়েছে।

দলীয় সূত্রে খবর, এই নির্বাচনগুলিতে প্রতিটি পোলিং বুথে পাঁচজন করে মহিলা কর্মী রাখার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। মে মাসের আগেই এইসব রাজ্যে ভোট হবে। সেখানে মহিলাদের এগিয়ে দেওয়া হবে। যাতে মহিলা ভোটাররা উৎসাহিত হয়ে কংগ্রেসকে ভোট দেয়।

এই বিষয়ে মহিলা কংগ্রেস নেত্রী সুস্মিতা দেব বলেন, ‘‌পাঁচজন করে বুথ স্তরে কর্মী নিয়োগ করা হবে। যাঁদের দায়িত্ব থাকবে মহিলাদের ক্ষমতায়ন নিয়ে দলের বড় পদক্ষেপ নীচুস্তরে পৌঁছে দেওয়া। সমস্ত রাজ্য সভাপতিদের কাছ থেকে এই মর্মে পরামর্শ চাওয়া হয়েছে।’‌ মহিলা কংগ্রেসের ন্যাশনাল এগজিকিউটিভ বৈঠকে এই বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। মহিলা ভোটার বাড়ানো নিয়ে আলোচনা হয়েছে। এই বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন সাধারণ সম্পাদক (‌সংগঠন)‌ কে সি বেনুগোপাল। শুক্রবার দিনের মধ্যে এই রিপোর্ট পৌঁছে যাবে প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর কাছেও।

জানা গিয়েছে, মহিলাদের যে বড় অংশের ভোটার তাঁদেরকে নিয়ে আসতে হবে কাছে। করোনাভাইরাস মহামারীতে ইতিমধ্যেই কংগ্রেস মহিলাদের স্যানিটারি ন্যাপকিন পৌঁছে দিয়েছে। গার্হস্থ্য হিংসায় মহিলাদের পাশে গিয়ে দাঁড়িয়েছে কংগ্রেস। মহিলা ভোটার বাড়াতে এবার তিনটে বিষয়ের উপর জোর দেওয়া হচ্ছে। তা হল—মহিলা, সোশ্যাল মিডিয়া এবং ব্লক স্তরে পৌঁছনো।

মহিলা কংগ্রেস সভানেত্রীর কথায়, ‘‌ইতিমধ্যেই আমরা ব্লক স্তরে ২৮০ জন পর্যবেক্ষককে নিয়োগ করেছি। তাঁরা এখান থেকে মহিলাদের বেছে নেবেন, যাঁরা সক্রিয় রাজনীতিতে আসতে চান। যাঁরা কর্মরত মহিলা তাঁদেরকেও নিয়ে আসার কথা ভাবা হচ্ছে।’‌

বন্ধ করুন