বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > 'কম জোগান', তাও সোমবার থেকে আরও বেশি কেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের করোনা টিকা
সোমবার থেকে আরও বেশি কেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের করোনা টিকা (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
সোমবার থেকে আরও বেশি কেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের করোনা টিকা (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

'কম জোগান', তাও সোমবার থেকে আরও বেশি কেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের করোনা টিকা

  • ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন, সোমবার থেকে কলকাতার অধিকাংশ স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু টিকার অভাবে তা সম্ভব হয়নি।

ইতিমধ্যে ২৯ টি কেন্দ্র থেকে ১৮ বছরের ঊর্ধ্বদের করোনাভাইরাস টিকা দিচ্ছে কলকাতা পুরনিগম। আগামী সোমবার থেকে সেই তালিকায় যুক্ত হচ্ছে আরও আটটি কেন্দ্র। যদিও পুরনিগমের প্রশাসকমণ্ডলীর চেয়ারম্যান ফিরহাদ হাকিম জানিয়েছেন, সোমবার থেকে কলকাতার অধিকাংশ স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে ১৮ ঊর্ধ্বদের টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু টিকার অভাবে তা সম্ভব হয়নি।

আপাতত অহীন্দ্র মঞ্চ, সাউট সিটি স্কুল, কোয়েস্ট মল-সহ বিভিন্ন মেগা টিকাকরণ কেন্দ্র থেকে প্রতিষেধক প্রদান করছে কলকাতা পুরনিগম।  সবমিলিয়ে আপাতত ২৯ টি কেন্দ্র থেকে ১৮ বছরের ঊর্ধ্বদের টিকা দেওয়া হচ্ছে। সোমবার থেকে সেই সংখ্যাটা বেড়ে দাঁড়াচ্ছে ৩৭। আগামিদিনে সেই সংখ্যাটা আরও বাড়ানো হবে বলে পুরনিগমের তরফে জানানো হয়েছে। সেইসঙ্গে ওই ৩৭ টি কেন্দ্র থেকে ৪৫ বছরের ঊর্ধ্বে মানুষরাও টিকা নিতে পারবেন।

ফিরহাদ জানিয়েছেন, জুনের মাঝামাঝি সময় থেকেই কলকাতার বেশিরভাগ জায়গায় ১৮ ঊর্ধ্বদের করোনা টিকা দেওয়ার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু পর্যাপ্ত সংখ্যক টিকা না আসায় সেই লক্ষ্যমাত্রা মতো এগিয়ে যেতে পারেনি পুরনিগম। কলকাতা পুরনিগমের মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক সুব্রত রায় চৌধুরী জানিয়েছেন, এমনিতে দৈনিক এক লাখ ডোজ টিকা দেওয়ার পরিকাঠামো তৈরি আছে। কিন্তু টিকার অভাবেই সেই লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হচ্ছে না বলে দাবি করেন তিনি।

পুরনিগমের স্বাস্থ্য বিভাগের বক্তব্য, কলকাতায় সংক্রমণ ক্রমশ কমছে। সপ্তাহতিনেক আগেও যেখানে কলকাতায় দিনে ৪,০০০-এর বেশি নয়া আক্রান্তের হদিশ মিলছিল, এখন সেই সংখ্যাটা ২০০-র কাছাকাছি নেমে এসেছে। সেই পরিস্থিতিতে সম্ভাব্য তৃতীয় ঢেউয়ের আগেই ১৮ বছরের ঊর্ধ্বে ১০০ শতাংশ টিকাকরণের লক্ষ্য নেওয়া হয়েছে। সেইমতো চলছে কাজ।

বন্ধ করুন