বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > আদালত নির্দেশ দিলে তদন্তে প্রস্তুত সিবিআই, মেট্রো ডেয়ারি মামলায় আরও বিপাকে রাজ্য
মেট্রো ডেয়ারি মামলার তদন্তভার নিতে তৈরি সিবিআই, আদালতকে জানাল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা. (AFP PHOTO.) (HT_PRINT)
মেট্রো ডেয়ারি মামলার তদন্তভার নিতে তৈরি সিবিআই, আদালতকে জানাল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা. (AFP PHOTO.) (HT_PRINT)

আদালত নির্দেশ দিলে তদন্তে প্রস্তুত সিবিআই, মেট্রো ডেয়ারি মামলায় আরও বিপাকে রাজ্য

  • কার্যত জলের দলে মেট্রো ডেয়ারির শেয়ার বিক্রি করেছে রাজ্য, অভিযোগ তুলে জনস্বার্থ মামলা করেছিলেন অধীর চৌধুরী।

মেট্রো ডেয়ারির শেয়ার বিক্রি করা নিয়ে কংগ্রেস নেতা অধীর চৌধুরীর করা মামলায় নয়া মোড়। এর জেরে কার্যত আরও অস্বস্তি বাড়ল রাজ্য সরকারের। মেট্রো ডেয়ারি বিক্রি সংক্রান্ত ঘটনার তদন্ত করতে রাজি সিবিআই। মঙ্গলবার এব্যাপারে হাইকোর্টকেও জানিয়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। এদিন সিবিআইয়ের তরফে জানানো হয়েছে যদি আদালত নির্দেশ দেয় তবে মেট্রো ডায়েরির শেয়ার বিক্রি সংক্রান্ত মামলার তদন্ত করতে তারা প্রস্তুত। 

 

এদিকে ২০১১ সালে ক্ষমতায় আসার পর থেকে আজ পর্যন্ত এই সংস্থাটিকেই একমাত্র বিলগ্নীকরণ করেছিল রাজ্য সরকার। বেসরকারি সংস্থার কাছে বেচে দেওয়া হয়েছিল ৪৭ শতাংশ শেয়ার। এদিকে এই শেয়ার বিক্রির ক্ষেত্রে ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ তুলেছিলেন কংগ্রেস নেতা অধীর চৌধুরী। কেন্দ্রীয় তদন্তের দাবি জানিয়ে ২০১৮ সালে জনস্বার্থ মামলা করেছিলেন তিনি। 

 

এদিকে অধীর চৌধুরীর করা পিটিশনে অভিযোগ তোলা হয়েছিল যে ২০১৭ সালে রাজ্য ক্যাবিনেট এই ডেয়ারির ৪৭ শতাংশ শেয়ার ক্যাভেন্টার অ্য়াগ্রো লিমিটেডকে বিক্রির অনুমোদন দিয়েছিল। সেই সময় একমাত্র বিডার ছিল ওই সংস্থা। প্রায় ৮৫ কোটি টাকায় বিক্রি করা হয়েছিল এই শেয়ার। এরপর কোম্পানির পুরো মালিকানা পাওয়ার পরেই সিঙ্গাপুরের একটি কোম্পানির কাছে ১৫ শতাংশ শেয়ার বিক্রি করে ক্যাভেন্টার। সেই সময় সেই শেয়ার বিক্রি হয়েছিল ১৩৫ কোটি টাকায়। এখানেই প্রশ্ন তুলেছিলেন অধীর। তাঁর অভিযোগ জনগণের টাকায় তৈরি একটি কোম্পানির শেয়ার অত্যন্ত কম দামে ক্যাভেন্টারকে বিক্রির মাধ্যমে ৫০০ কোটি টাকা ক্ষতি করেছিল সরকার। 

এদিকে গত তিন বছর ধরে এই মামলার একাধিকবার শুনানি হয়েছে। এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট ২০১৯ সালে ক্যাভেন্টারের একাধিক কর্তা, সরকারি আধিকারিকদের জেরা করেছিল। এদিকে অধীর চৌধুরীর আইনজীবী প্রতীপ কুমার চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন, ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে সরকার ও ক্যাভেন্টারকে হলফনামা জমা দিতে বলেছে আদালত। ১৬ই ডিসেম্বর চূড়ান্ত শুনানি হবে। তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ বলেন,সব ক্ষেত্রে সিবিআই চাইছে বিজেপি। সেটা সহায়তা করছেন অধীর চৌধুরী। বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষ বলেন, এটা সিবিআই তদন্তের প্রয়োজন। 

 

বন্ধ করুন