বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Sabyasachi-Anindya: 'দেখে অবাক হয়ে যাই...', ঐন্দ্রিলা-সব্যসাচীকে নিয়ে কলম ধরলেন অভিনেতা অনিন্দ্য

Sabyasachi-Anindya: 'দেখে অবাক হয়ে যাই...', ঐন্দ্রিলা-সব্যসাচীকে নিয়ে কলম ধরলেন অভিনেতা অনিন্দ্য

ফেসবুকে ঐন্দ্রিলা-সব্যসাচীকে নিয়ে লিখলেন অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়

Sabyasachi Chowdhury-Anindya Chatterjee: ‘আজকে শট দিতে যাওয়ার আগে সব্যসাচীর পোস্টটা বুকে লাগলো আবার। একটাই প্রার্থনা ঐন্দ্রিলা আগেও যেভাবে ফিরে এসেছে, এবারও যেনো সেটার পুনরাবৃত্তি হয়। আর সব্যসাচীকে দেখে অবাক হয়ে যাই..’ দীর্ঘ পোস্টে লিখলেন অভিনেতা অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়।

দিন দুয়েক ধরেই ঐন্দ্রিলা শর্মার স্বাস্থ্য নিয়ে উদ্বিগ্ন চিকিৎসকেরা। অলৌকিক কিছু একটা ঘটুক, সকলকে প্রার্থনা করতে বলেছেন অভিনেতা সব্যসাচী চৌধুরী। আন্দুলের নারায়াণা সুপারস্পেশালিটি হাসপাতালে ছায়ার মতো প্রেমিকার পাশে রয়েছেন সব্যসাচী।

সোমবার এক ফেসবুক পোস্টে সব্যসাচী লেখেন, ‘কোনওদিন এটা এখানে লিখবো ভাবিনি, আজ লিখলাম। ঐন্দ্রিলার জন্য মন থেকে প্রার্থনা করুন। মিরাকেলের জন্য প্রার্থনা করুন। অলৌকিক কিছু একটা ঘটনা ঘটুক, প্রার্থনা করুন। সব কঠিন পরিস্থিতির সঙ্গে ও অতিমানবীয় লড়াই লড়ছে'। সব্যাসাচীর এই ফেসবুক পোস্টের পরই অভিনেত্রীর শারীরিক অবস্থা নিয়ে আরও উদ্বিগ্ন পড়েন ঐন্দ্রিলা-ভক্তরা। নায়িকার জন্য প্রার্থনা করছেন ইন্ডাস্ট্রির সহকর্মীরা।

আরও পড়ুন: ঐন্দ্রিলার সঙ্গে লড়াইটা সব্যসাচীরও, বন্ধুকে মনের জোর জীতুর, কী বললেন অভিনেতা

এ দিন অভিনেতা অনিন্দ্য চট্টোপাধ্য়ায় ফেসবুকে ঐন্দ্রিলা এবং সব্যসাচীকে নিয়ে কলম ধরেন। তিনি লেখেন, ‘ঐন্দ্রিলাকে নিয়ে কিছুই লিখিনি ফেসবুকে। খালি মনে মনে প্রার্থনা করে গিয়েছি যেন মেয়েটা সুস্থ হয়ে ওঠে তাড়াতাড়ি। আজকে শট দিতে যাওয়ার আগে সব্যসাচীর পোস্টটা বুকে লাগলো আবার। একটাই প্রার্থনা ঐন্দ্রিলা আগেও যেভাবে ফিরে এসেছে, এবারও যেন সেটার পুনরাবৃত্তি হয়।'

আরও লিখেছেন, 'আর সব্যসাচীকে দেখে অবাক হয়ে যাই। ভগবান আর এঁদের মতন প্রেমিক বানায় না। নিঃস্বার্থ ভালোবাসা কাকে বলে এরাই জানে। পাশে দাঁড়াতে এরাই জানে। আমরা খালি ফেসবুক করি। লজ্জা হয় আয়নার সামনে দাঁড়াতে।’

অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়ের ফেসবুক পোস্ট
অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়ের ফেসবুক পোস্ট

প্রসঙ্গত, দু-বারের ক্য়ানসার জয়ী ঐন্দ্রিলা। গত ১ নভেম্বর বাড়িতেই অসাড় হয়ে যায় ঐন্দ্রিলার শরীর। হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসরা জানান, ‘ব্রেন স্ট্রোক’-এর শিকার তিনি। আন্দুলের নারায়াণা সুপারস্পেশালিটি হাসপাতালের আইসিইউ-তে ‘সি প্যাপ’ সাপোর্টে রয়েছেন অভিনেত্রী। কোমায় রয়েছেন ‘জিয়ন কাঠি’ নায়িকা।

১৪ দিন আগে ঐন্দ্রিলার শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে নিয়ে হাসপাতালে পৌঁছেছিলেন সব্যসাচী। সেই থেকে এই অবস্থায় সর্বক্ষণ তাঁর পাশে রয়েছেন অভিনেতা। সব্যাসাচীর কথায় অনুযায়ী, ‘অলৌকিক’ কিছু ঘটার প্রার্থনা করছে সকলে। এই মুহূর্তে ঐন্দ্রিলার অনুরাগীরা, পরিবার, ইন্ডাস্ট্রির সহকর্মী সহ শুভানুধ্যায়ীরা সকলেই সুস্থতা কামনা করছেন অভিনেত্রীর।

বন্ধ করুন