বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > মহারাষ্ট্র: ঠাকরে-গড়ের স্থানীয় ভোটে কিস্তিমাত শরদের এনসিপির, ট্রেন্ড কী বলছে ?
মহারাষ্ট্রের শাসক জোটের মধ্যে যেখানে এনসিপির দখলে ৩৭৯ টি আসনের হাত ধরে ২৪ টি নগর পঞ্চায়েত দখলে রেখেছে। সেখানে শিবসেনা ও কংগ্রেস যথাক্রমে ১৮ ও ১৪ টি আসনে দাপট ধরে রেখেছে। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
মহারাষ্ট্রের শাসক জোটের মধ্যে যেখানে এনসিপির দখলে ৩৭৯ টি আসনের হাত ধরে ২৪ টি নগর পঞ্চায়েত দখলে রেখেছে। সেখানে শিবসেনা ও কংগ্রেস যথাক্রমে ১৮ ও ১৪ টি আসনে দাপট ধরে রেখেছে। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

মহারাষ্ট্র: ঠাকরে-গড়ের স্থানীয় ভোটে কিস্তিমাত শরদের এনসিপির, ট্রেন্ড কী বলছে ?

  • দুই জেলা পরিষদ ও ১৫ টি পঞ্চায়েত সমিতির ভোট ঘিরে চমকপ্রদ অঙ্ক উঠে আসছে  মহারাষ্ট্রের বুক থেকে।

পিছিয়ে রইল উদ্ধব ঠাকরের শিবসেনা, পিছিয়ে রইল কংগ্রেসও। তবে তাদের জোট শরিক এনসিপি আপাতত মাত করে দিচ্ছে মহারাষ্ট্রের ভান্ডারা ও গোন্ডিয়া জেলার দুই স্থানীয় নির্বাচনে। ১০৬ টি নগর পঞ্চায়েত ভোটে আসন সংখ্যা ১৮০২। সেখানে এনসিপি দখলে রেখেছে ৩৭৯ টি আসন, বিজেপি দখলে রেখেছে ৩৫৯ টি আসন। ফলে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইতে আপাতত রয়েছে এনসিপি ও বিজেপি। সেই জায়গা থেকে অনেকটাই পিছনে ঠাকরে শিবিরের শিবসেনা।

শিবসেনা এগিয়ে রয়েছে ২৯৭ টি আসনে, সবশেষে কংগ্রেস এগিয়ে রয়েছে ২৮১ আসনে। উদ্ধাব সরকারের মহারাষ্ট্রে দুই জেলার স্থানীয় ভোটে শিবসেনার এই সমীকরণ নীঃসন্দেহে তাৎপর্যপূর্ণ। অন্যদকে, শরিক শিবসেনাকে ছাপিয়ে এনসিপির বিজয়ী হিসাবে উঠে আসাও কম গুরুত্বের নয়। এছাড়াও এই অঙ্কে বিজেপির ভোট অঙ্কও বড় ভূমিকা পালন করছে। বিজেপি এই এলাকার ভোটে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। এলাকার রাজনীতির শেষ অঙ্ক বলছে, ৯২ টির মধ্যে ২০ টি নগর পঞ্চায়েত নিজের দখলে রাখতে পেরেছে বিজেপি। এদিকে ২৪ টি নগর পঞ্চায়েতে দখল রেখেছে মারাঠী স্ট্রংম্যান শরদ পাওয়ারের পার্টি এনসিপি। নগর পঞ্চায়েত ছাড়াও দুটি জেলা পরিষদ ও ১৫ টি পঞ্চায়েত সমিতির ভোট দুটি দফায় হয়েছে। ২১ ডিসেম্বরের পর ১৮ জানুয়ারি ছিল পরবর্তী ভোট গ্রহণের তারিখ। এক্ষেত্রে অনগ্রসর শ্রেণির জন্য আসন সংরক্ষণের বিষয়টি নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের রায় আসার পরই নির্বাচন সংগঠিত হয়।

এদিকে, ভোট গ্রহণ পর্বের সমাপ্তিতে বুধবার সকাল থেকে এই ভোটের গণনা শুরু হয়েছে। প্রাথমিক ট্রেন্ডে এনসিপি প্রথম থেকেই এগিয়ে যায়। মহারাষ্ট্রের শাসক জোটের মধ্যে যেখানে এনসিপির দখলে ৩৭৯ টি আসনের হাত ধরে ২৪ টি নগর পঞ্চায়েত দখলে রেখেছে। সেখানে শিবসেনা ও কংগ্রেস যথাক্রমে ১৮ ও ১৪ টি আসনে দাপট ধরে রেখেছে। এদিকে, বিজেপি এই নির্বাচন ঘিরে তাদের অবস্থানকে পোক্ত জায়গাতেই দেখছে। বিজেপির তরফে চন্দ্রশেখর বাওয়ানকুলে জানিয়েছেন, এই ভোট তাঁদের কাছে, তিন পার্টির সঙ্গে 'একার লড়াই' ছিল। ফলে এনসিপি, কংগ্রেস, ও শিবসেনাকে ছাপিয়ে বিজেপির এই ভোট দখল গেরুয়া শিবিরের কাছে তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে ফড়নবীশ শিবিরও। এদিকে শিবসেনার তরফে আবদুল সত্তার জানিয়েছেন, 'মোট আসন সংখ্যার নিরিখে বিজেপি দ্বিতীয় নম্বরে এসেছে। যদি বাকি তিনটি পার্টির মোট আসন ধরা যায়, তাহলে কিন্তু এগিয়ে রয়েছি আমরা।'

 

বন্ধ করুন