বাড়ি > ঘরে বাইরে > কর্নাটক ও কেরালায় ‘উল্লেখজনক’ সংখ্যায় রয়েছে ISIS জঙ্গিরা : রাষ্ট্রসংঘ
কর্নাটক ও কেরালায় ‘উল্লেখজনক’ সংখ্যায় রয়েছে ISIS জঙ্গিরা : রাষ্ট্রসংঘ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
কর্নাটক ও কেরালায় ‘উল্লেখজনক’ সংখ্যায় রয়েছে ISIS জঙ্গিরা : রাষ্ট্রসংঘ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

কর্নাটক ও কেরালায় ‘উল্লেখজনক’ সংখ্যায় রয়েছে ISIS জঙ্গিরা : রাষ্ট্রসংঘ

  • তালিবানের ছত্রচ্ছায়ায় ভারতীয় উপমহাদেশে সক্রিয় রয়েছে আল কায়দা।

ভারতে ক্রমশ নিজেদের জাল বিস্তার করছে আইসিস। বিশেষত কেরালা এবং কর্নাটকে ‘উল্লেখযোগ্য’ সংখ্যক জঙ্গি রয়েছে। রাষ্ট্রসংঘের একটি রিপোর্টে এমনই তথ্য উঠে এসেছে।

আরও পড়ুন : পাকিস্তানের চিনা ড্রোনের মোকাবিলায় সশস্ত্র ‘প্রিডেটর-বি’ ড্রোন পাচ্ছে বায়ুসেনা

আইসিস, আল কায়দা এবং অন্যান্য সহযোগী জঙ্গি সংগঠনের উপর নজরদারি চালানো দলের ২৬ তম রিপোর্টে জানানো হয়েছে, আফগানিস্তানের নিমরুজ, হেলমন্দ এবং কান্দাহার প্রদেশ থেকে তালিবানের ছত্রচ্ছায়ায় ভারতীয় উপমহাদেশে সক্রিয় রয়েছে আল কায়দা।  তাতে ভারত, বাংলাদেশ, পাকিস্তান এবং মায়ানমারের কমপক্ষে ১৫০-২০০ জঙ্গি রয়েছে। ওই এলাকায় একাধিক হামলা চালানোরও পরিকল্পনা করছে আল কায়দা।

আরও পড়ুন : কার্গিল বিজয় দিবসের প্রতি ‘মন কি বাত’ উৎসর্গ, জওয়ানদের কাহিনি প্রচারের আর্জি মোদীর

রিপোর্টে বলা হয়েছে, ‘বর্তমানে (আল কায়দার উপমহাদেশের শাখায়) মাথা হল ওসামা মেহমুদ.. যে মৃত অসীম উমরের পরিবর্তে সংগঠনের দায়িত্ব পেয়েছে। নিজেদের প্রাক্তন প্রধানের মৃত্যুর প্রতিশোধ নিতে আল কায়দা হামলা চালানোর পরিকল্পনা করছে।’

আরও পড়ুন : সুশান্তের মৃত্যু: করণ জোহরের ম্যানেজারকে শমন পুলিশের, জেরার মুখে পরিচালকও!

রাষ্ট্রসংঘের রিপোর্টে জানানো হয়েছে, ভারতে আইসিসের শাখা সংগঠন হিন্দ উইলিয়াহতে ১৮০-২০০ জঙ্গি রয়েছে বলে খবর। যে সংগঠনটির বিষয়ে গত বছর ১০ মে ঘোষণা করা হয়েছিল। রিপোর্ট অনুযায়ী, ‘কেরালা এবং কর্নাটকে আইএসআইএলের (ইসলামিক স্টেট বা আইসিসের অপর নাম। এছাড়াও দায়েশ এবং আইএস নামেও পরিচিত) অপারেটিভ রয়েছে।’

আরও পড়ুন : স্বাধীনতা দিবসে ভারতকে করোনা মুক্ত করার সংকল্প নেওয়া হোক, দেশবাসীকে আর্জি মোদীর

উল্লেখ্য, গত বছর মে মাসে ভারতে নয়া ‘প্রদেশ’ স্থাপনের ঘোষণা করেছিল আইসিস। কাশ্মীরে নিরাপত্তারক্ষী ও জঙ্গিদের গুলির লড়াইয়ের পর এরকম প্রথম দাবি করা হয়েছিল। নিজেদের সংবাদ সংস্থা 'আমাক'-এর মাধ্যমে সন্ত্রাসবাদী সংগঠন জানিয়েছিল, আরবিতে নয়া শাখার নাম ‘উইলিয়াহ অফ হিন্দ’ (ভারতীয় প্রদেশ)। যদিও সেই দাবি উড়িয়ে দিয়েছিলেন জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশের এক শীর্ষকর্তা। 

আরও পড়ুন : ফের বিধানসভা অধিবেশন শুরু করতে রাজ্যপালকে চিঠি গেহলটের, এড়ালেন আস্থা ভোটের কথা

তার আগে জম্মু ও কাশ্মীরে হামলার ঘটনায় নাম জড়িয়েছিল আইসিসের তথাকথিত খোরাসান প্রদেশের শাখার। ‘আফগানিস্তান, পাকিস্তান এবং আশপাশের এলাকার জন্য’ ২০১৫ সালে সেটি তৈরি করা হয়েছিল।

বন্ধ করুন