বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Pak Cops: পাক পুলিশ অফিসারের ব্যাঙ্কে রাতারাতি ঢুকল ১০ কোটি টাকা! কীভাবে? তদন্তে পুলিশ

Pak Cops: পাক পুলিশ অফিসারের ব্যাঙ্কে রাতারাতি ঢুকল ১০ কোটি টাকা! কীভাবে? তদন্তে পুলিশ

পাক পুলিশের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ১০ কোটি টাকা। প্রতীকী ছবি

আমির গোপাং করাচির বাহাদুরপুর থানায় কর্মরত। তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে কয়েক হাজার টাকা ছিল। কিন্তু, তিনি জানতে পারেন কেউ তার অ্যাকাউন্টে ১০ কোটি টাকা পাঠিয়েছে। ব্যাঙ্কের মাধ্যমে যোগাযোগ করে তাকে এই বিষয়টি জানানো হয়।

রাতারাতি কোটিপতি হয়ে গেলেন পাকিস্তানের করাচির এক পুলিশ অফিসার। কোনও লটারি বা পুরস্কার থেকে নয়। আচমকা ওই পুলিশ অফিসারের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ঢুকল ১০ কোটি টাকা! বিষয়টি জানতে পেরে হতবাক ওই পুলিশ অফিসার আমির গোপাং। এ নিয়ে শোরগোল পড়ে যায় করাচির পুলিশ মহলে। কে বা কারা ওই পুলিশ অফিসারকে টাকা পাঠাল? কেনই বা টাকা পাঠানো হল? তা নিয়ে রহস্য ঘনীভূত হচ্ছে।

জানা গিয়েছে, আমির গোপাং করাচির বাহাদুরপুর থানায় কর্মরত। তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে কয়েক হাজার টাকা ছিল। কিন্তু, তিনি জানতে পারেন কেউ তাঁর অ্যাকাউন্টে ১০ কোটি টাকা পাঠিয়েছে। ব্যাঙ্কের মাধ্যমে যোগাযোগ করে তাকে এই বিষয়টি জানানো হয়। পুলিশ অফিসার আমির গোপাং বলেন, ‘ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে এত টাকা ঢুকেছে শুনেই আমি হতবাক হয়ে গিয়েছিলাম। কারণ আমার অ্যাকাউন্টে কয়েক হাজার টাকার বেশি ছিল না। ব্যাঙ্কের তরফে যোগাযোগ করে আমাকে এ বিষয়ে জানানো হয়। ওরা আমাকে জানায় যে আমার অ্যাকাউন্টে ১০ টাকা স্থানান্তরিত করা হয়েছে।’

এদিকে বিষয়টি প্রকাশ্যে আসতেই তার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট বাজেয়াপ্ত করার পাশাপাশি তার এটিএম কার্ডও ব্লক করেছে ব্যাঙ্ক কর্তৃপক্ষ। এই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। যদিও শুধু ওই পুলিশ অফিসারের অ্যাকাউন্টেই টাকা ঢুকেছে তা নয়, থানায় আরও কয়েকজন পুলিশ অফিসারের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে প্রায় পাঁচ কোটি টাকা করে ঢুকেছে বলে জানা গিয়েছে। লারকানা এবং সুক্কুরে এই ধরনের ঘটনা ঘটেছে। লারকানা পুলিশের একজন মুখপাত্র বলেন, বিষয়টি পুলিশের তদন্তাধীন রয়েছে। তিনজনই কীভাবে বিপুল পরিমাণ টাকা পেয়েছেন তা খতিয়ে দেখা হবে।

বন্ধ করুন