বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > কত দিন মেহবুবা মুফতিকে আটকে রাখবেন, প্রশাসনকে প্রশ্ন সুপ্রিম কোর্টের
মেহবুবা মুফতি
মেহবুবা মুফতি

কত দিন মেহবুবা মুফতিকে আটকে রাখবেন, প্রশাসনকে প্রশ্ন সুপ্রিম কোর্টের

মেহবুবা মুফতির মেয়ের মামলার শুনানি চলছিল আদালতে। 

কতদিন মেহবুবা মুফতিকে আটকে রাখবে জম্মু-কাশ্মীর সরকার ও কোন ধারায়, এই বিষয়টি স্পষ্ট করতে বলল সুপ্রিম কোর্ট। গত বছর ৫ অগস্ট ৩৭০ ধারা অবলুপ্তি হওয়ার সময় থেকেই আটক জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি। 

পিডিপি নেতাকে অবিলম্বে মুক্ত করা হোক, এই দাবি করে শীর্ষ আদালতে গিয়েছেন তাঁর মেয়ে ইলতিজা মেহবুব। তাঁর করা পিটিশনের এদিন শুনানি হল দুই সদস্যের বেঞ্চের সামনে। বিচারপতি সঞ্জয় কিষান কৌলের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চে আছেন বিচারক হষিকেশ রায়ও। তাঁরা সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহতাকে এই প্রশ্ন করেন। কেন্দ্রীয় শাসিত অঞ্চল জম্মু-কাশ্মীরের হয়ে আদালতে ছিলেন সলিসিটার জেনারেল। 

এদিন ইলতিজার পক্ষের আইনজীবী আদালতে অভিযোগ করেন যে মেহবুবা মুফতির সঙ্গে তাঁর বাড়ির লোকদের দেখা করতে দেওয়া হচ্ছে না। পুরো বিষয়টি নিয়ে কেন্দ্রকে এক সপ্তাহের মধ্যে জবাব দিতে হবে। মামলার ফের শুনানি হবে অক্টোবর ১৫। 

বিচারপতি কৌল জিজ্ঞেস করেন কোন ধারায় এতদিন ধরে মেহবুবা মুফতিকে ডিটেন করে রাখা হয়েছে। এর সর্বোচ্চ কোনও মেয়াদ আছে কি না ও এক বছরের ওপর সেটি বাড়ানো যায় কি, সেই প্রশ্নও করেন বিচারপতি কৌল। চিরকাল কোনও ব্যক্তিকে আটক করে রাখা যায় না বলেও জানায় সুপ্রিম কোর্ট। 

সলিসিটার জেনারেল বলেন এক সপ্তাহের মধ্যে তিনি এই সব ইস্যুতে কেন্দ্রের অবস্থান স্পষ্ট করবেন। সুপ্রিম কোর্ট মেহবুবা মুফতির মেয়ে ও তাঁর কাকাকে দেখা করতে দেওয়ার অনুমতি দিয়েছেন। 

 জুলাইয়ে পাবলিক সেফটি অ্যাক্টের আওতায় তিন মাস বৃদ্ধি করা হয় মেহবুবা মুফতির ডিটেনশন। প্রসঙ্গত, ৩৭০ ধারা অবলুপ্তির সময় অধিকাংশ রাজনৈতিক নেতাদের বন্দি করেছিল কেন্দ্র। এরপর ধীরে ধীরে ওমর ও ফারুক আবদুল্লা সহ অনেকেই মুক্ত হয়েছেন কিন্তু এখনও বন্দিদশা কাটেনি মেহবুবা মুফতির। 

 

বন্ধ করুন