বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ > পুরভোটের লড়াই > তৃণমূলের প্রতীক ছাড়া দাঁড়িয়ে কী হয়েছিল সবাই দেখেছে, সব্যসাচীকে খোঁচা সুজিতের

তৃণমূলের প্রতীক ছাড়া দাঁড়িয়ে কী হয়েছিল সবাই দেখেছে, সব্যসাচীকে খোঁচা সুজিতের

পশ্চিমবঙ্গের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসুর বিরুদ্ধে। ছবি: এএনআই।

এদিন সুজিতবাবু বলেন, ‘তৃণমূলে প্রতীকটাই শেষ কথা। তৃণমূলের প্রতীক ছাড়া দাঁড়িয়ে কী ফল হয়েছিল সবাই দেখেছে। এবার তৃণমূলের প্রতীকে দাঁড়িয়ে জিতেছে।’

পুরভোটে জিতেও আর্চ রাইভাল সুজিত বসুর আক্রমণ থেকে রক্ষা পেলেন না বিধাননগরের ৩৬ নম্বর ওয়ার্ডের প্রার্থী সব্যসাচী দত্ত। সোমবার পুরভোটের গণনায় জয়ী হয়েছেন সব্যসাচী। তৃণমূলে প্রত্যাবর্তনের পর প্রথমবার দেখা করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে। কিন্তু সুজিত বসুর কটাক্ষ থেকে রেহাই পাননি তিনি। এদিন ফলপ্রকাশের পর সুজিতবাবু বলেন, ‘তৃণমূলের প্রতীক ছাড়া দাঁড়িয়ে কী হয়েছিল সবাই দেখেছে।’

সোমবার পুরভোটের গণনা শেষ হলে দেখা যায় বিধাননগরে ৭১ শতাংশ ভোট পেয়েছে তৃণমূল। দিকে দিকে তাদের জয়জয়কার। ৪১টির মধ্যে ৩৯টি ওয়ার্ডে জয়ী হয়েছে তারা। জিতেছেন বিজেপি থেকে তৃণমূলে ফেরা সব্যসাচী দত্তও। তাঁর জয় নিয়ে সুজিত বসুকে প্রশ্ন করতেই বদলে গেল মন্ত্রীমশাইয়ের মুখের মানচিত্র।

এদিন সুজিতবাবু বলেন, ‘তৃণমূলে প্রতীকটাই শেষ কথা। তৃণমূলের প্রতীক ছাড়া দাঁড়িয়ে কী ফল হয়েছিল সবাই দেখেছে। এবার তৃণমূলের প্রতীকে দাঁড়িয়ে জিতেছে।’ তবে সব্যসাচীর নাম একবারও মুখে নেননি তিনি। প্রাক্তন মেয়রকে কি শুভেচ্ছা জানিয়েছেন? এবারও ভাববাচ্যে জবাব দেন সুজিত। বলেন, ‘যারা সার্টিফিকেট নিয়েছেন সবাইকে শুভেচ্ছা জানিয়েছি।’

মেয়র নির্বাচনের ব্যাপারে দলের ওপরেই আস্থা রেখেছেন সুজিত। বলেন, ‘প্রার্থীতালিকা তৈরির আগে দল আমাদের পরামর্শ নিয়েছিল। মেয়র ঘোষণার আগেও নিশ্চই আমাদের সঙ্গে কথা বলবে। তখন যা বলার বলব।’

 

বন্ধ করুন