বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ধারের ২৫ লাখ ফেরত দেবে না, জনপ্রিয় গায়িকাকে শ্বাসরোধ করে খুন করল বন্ধু
গুজরাটি গায়িকা বৈশালী বুরসালার হত্যা রহস্য সমাধান করল পুলিশ। 

ধারের ২৫ লাখ ফেরত দেবে না, জনপ্রিয় গায়িকাকে শ্বাসরোধ করে খুন করল বন্ধু

  • গুজরাটি গায়িকা বৈশালী বুরসালা হত্যা মামলার নিস্পত্তি করে ফেলল পুলিশ। জানা গেল ঘনিষ্ঠ বান্ধবী ববিতাই খুন করেছেন বৈশালীকে। 

শনিবার গুজরাট পুলিশ জানাল তাঁরা বৈশালী বুরসালার মৃত্যু রহস্যের সমাধান করে ফেলেছেন। ৩৪ বছর বয়সী এই ফোক গায়িকাকে অগস্টের ২৮ তারিখ মৃত অবস্থায় পাওয়া যায় গাড়ির ব্যাকসিটে পাওয়া যায় নদীর ধারে। নবরাত্রির সময়ে লাইভ গর্বা গাইতেন তিনি। আর তাতে জনপ্রিয়তাও পেয়েছিলেন। 

ডিসট্রিক্ট সুপারিন্ডেন্ট অফ পুলিশ রাজদীপসিং জালা জানান ওই গায়িকার কাছের বন্ধু ববিতা কৌশিক রয়েছে এই খুনের পিছনে। কনট্র্যাক্ট কিলারকে ৮ লাখ টাকা দিয়ে এই খুন করায় ববিতা। জানা গিয়েছে, ববিতা বৈশালীর থেকে ২৫ লাখ টাকা ধার নিয়েছিল। আর পুলিশ বলছে এই গুজরাতি গায়িকা বন্ধুকে বারবার চাপ দিচ্ছিলেন সেই টাকা জলদি ফিরিয়ে দিতে। আর এই লোনের হাত থেকে বাঁচতেই নিজের বন্ধুকে খুন করেন ববিতা। 

বৈশালীর স্বামী হিতেশ বুরসালা, পেশায় গিটারিস্ট অগস্টের ২৯ তারিখ প্রথম পুলিশের কাছে অভিযোগ জানান যে তাঁর বউকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। এরপর পুলিশ খবর পায় নদীর ধারে এক মহিলার মৃতদেহ খুঁজে পাওয়া গিয়েছে। মোবাইল ডেড হয়ে পড়েছিল আর গাড়ির চাবি ছিল না। পোস্টমরটেম রিপোর্ট থেকে জানা যায়, শ্বাসরোধ করে মারা হয়েছে। এরপর পুলিশের পক্ষ থেকে একাধিক জায়গার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হয়। আরও পড়ুন: স্কাইডাইভিংয়ে খুলল না প্যারাস্যুট, মাটিতে আছড়ে পড়ে মারা গেলেন জনপ্রিয় টিকটকার

পুলিশের তরফ থেকে জানা গিয়েছে বৈশালীকে প্রলুব্ধ করে ববিতা একটা খালি হিরের কারখানার সামনে দেখা করতে। সঙ্গে বলে, লোনে নেওয়া টাকা সে ফিরিয়ে দেবে। ববিতা তাঁর টু-হুইলার গাড়িখানা দূরে রেখেছিল। অটো করে পৌঁছেছিল ঘটনাস্থলে। আর বৈশালী ওই কারখানায় পৌঁছলেই তাঁর উপর হামলা করে কনট্রাক্ট কিলাররা। আরও পড়ুন: ভারতীর ছেলেকে গাল টিপে আদর করল এক ভক্ত, তারপর যা হল… অবিশ্বাস্য!

এরপর ববিতা আর দুই কনট্রাক্ট কিলার মিলে মৃতদেহ বয়ে নিয়ে যায় গাড়ি অবধি ও সেখানেই ছেড়ে যায়। ওই কারখানা ও পাশাপাশি কিছু জায়গার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে পুলিশ ববিতাকেই প্রধান অভিযুক্ত হিসেবে মনে করছে। তবে আরও কিছু সন্দেহভাজনকে গ্রেফতার করা হবে বলেই জানালো হয়েছে পুলিশের তরফে। তবে ববিতা যেহেতু এখন নয় মাসের প্রেগন্যান্ট, তাঁকে জেরা ও গ্রেফতার করা নিয়ে সহনশীল হবে পুলিশ বলেই জানিয়েছে। যদিও নিজের দোষ স্বীকার করে নিয়েছেন ববিতা ইতিমধ্যেই। 

 

বন্ধ করুন