বাড়ি > বায়োস্কোপ > বিহারের স্টেশনে শুয়ে থাকা মৃত মায়ের শিশুর দায়িত্ব নিলেন শাহরুখ খান,বললেন 'এই অনুভূতিটা আমি জানি'
রাজা সবারে দেন! 
রাজা সবারে দেন! 

বিহারের স্টেশনে শুয়ে থাকা মৃত মায়ের শিশুর দায়িত্ব নিলেন শাহরুখ খান,বললেন 'এই অনুভূতিটা আমি জানি'

  • মা-বাবা'কে হারানোর অনুভূতিটা আমি জানি…টুইট বার্তায় লিখলেন বাদশা। 

মায়ের শাড়ি ধরে খেলছে একরত্তি সন্তান। মা-কে 'ঘুম' থেকে তোলার চেষ্টা করছে। খেলাতে চাইছে মায়ের সঙ্গে, কিন্তু মা তখন চিরমুঘে। মায়ের। নিথর তিনি। বিহারের মুজফ্ফরপুর স্টেশনে মায়ের নিথর দেহের সামনে তাঁর একরত্তি সন্তানকে দেখে মন কেঁদে উঠেছিল নেটিজনেদের। সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া এই ভিডিয়ো দেখে চোখের কোণ চিকচিক করেছে সবার। এবার সেই শিশুর দিকেই সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলেন বলিউডের কিং খান।

শাহরুখ খানের মীর ফাউন্ডেশনের তরফে সোমবার ওই শিশু ও তাঁর দাদু-ঠাকুমার একটি ছবি শেয়ার করে জানানো হয়, এই পরিবারের সমস্ত দায়িত্ব বহন করবে তারা। মীর ফাউন্ডেশন অত্যন্ত কৃতজ্ঞ তাঁদের কাছে যাঁরা এই শিশুর পরিবারের কাছে আমাদের পৌঁছতে সাহায্য করেছে। আমরা এবার থেকে ওর দায়িত্ব নিলাম। আপতত ও নিজের দাদু-ঠাকুমার জিম্মায় রয়েছে'।

শাহরুখ খান টুইট করেন,ধন্যবাদ সকলকে এই খুদের কাছে আমাদের পৌঁছোতে সাহায্য করবার জন্য। আমাদের সকলের প্রার্থনা জীবনের সবচেয়ে বড় দুঃখ,মাকে হারানোর শোক কাটিয়ে ও শক্তি খুঁজে পায়। আমি জানি এই অনুভূতিটা…আমাদের সবার ভালোবাসা আর সমর্থন রইল ওর সঙ্গে'।

খুব অল্প বয়সেই বাবাকে হারিয়েছিলেন শাহরুখ খান। ৩০ বছর আগে মৃত্যু হয় শাহরুখের মায়েরও। ছেলের এই বিপুল সাফল্য,নাম,যশ কিছুই চোখে দেখে যেতে পারেননি শাহরুখের বাবা-মা। সেই যন্ত্রাণা আজও কুড়ে কুড়ে খায় শাহরুখকে। সেই অনুভূতিও ধরা পড়ল বাদশার এদিনের টুইটে। 

সংকটের সময় সর্বদাই দেশবাসীর পাশে দাঁড়ান শাহরুখ খান। করোনা সংকটে পথে নেমে কাজ করছে শাহরুখের দুই সংস্থা কলকাতা নাইট রাইডার্স ও মীর ফাউন্ডেশন। এছাড়াও আমফান বিধ্বস্ত বাংলার দিকেও সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন এই বলিউড তারকা। 

প্রসঙ্গত গত সোমবার  জল ও খাবারের অভাবে ট্রেনেই অসুস্থ হয়ে পড়েন ওই পরিযায়ী মহিলা শ্রমিক। মুজফ্ফরপুরে ট্রেন ঢোকার কিছুটা আগেই তাঁর মৃত্যু হয়েছিল ওই মহিলার। 

বন্ধ করুন