বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2022 > IPL 2022: ১১ বছরের ‘বনবাস’ কাটিয়ে LSG-র বিরুদ্ধে মাঠে নেমেই ইতিহাস গড়লেন GT-র ওয়েড
লখনউ সুপার জায়ান্টসের বিরুদ্ধে ব্যাট হাতে ওয়েড। ছবি- আইপিএল।

IPL 2022: ১১ বছরের ‘বনবাস’ কাটিয়ে LSG-র বিরুদ্ধে মাঠে নেমেই ইতিহাস গড়লেন GT-র ওয়েড

  • ম্যাথু ওয়েড গুজরাট টাইটানসের হয়ে নিজের কামব্যাক ম্যাচে ৩০ রান করার পাশাপাশি একটি ক্যাচও ধরেন।

বিশ্বের সেরা টি-টোয়েন্টি লিগ আইপিএল খেলা যে মুখের কথা নয়, তা সকলেই জানেন। বিদেশি ক্রিকেটার হলে তো খেলা আরও মুশকিল হয়ে যায়। এই বিষয়টা হয়তো ম্যাথু ওয়েড়ের থেকে ভাল খুব কম ক্রিকেটারই বুঝতে পারবেন। লখনউ সুপার জায়ান্টসের বিরুদ্ধে দীর্ঘ ১১ বছর পর আইপিএলে মাঠে নামলেন ওয়েড।

অজি উইকেটরক্ষক ওয়েড দিল্লি ডেয়ারডেভিলসের (বর্তমানে দিল্লি ক্যাপিটালস) হয়ে শেষ ২০১১ সালে পুণে ওয়ারিয়ার্সের বিরুদ্ধে আইপিএলে খেলেছিলেন। তারপর গুজরাট টাইটানসের হয়ে সোমবার (২৮ মার্চ) আবার আইপিএলের মঞ্চে দেখা গেল তাঁকে। তাঁর খেলা এই দুই ম্যাচের ব্যবধান ৩৯৬৪ দিন। এতদিনের ব্যবধানে আর কোনও ক্রিকেটার আইপিএলের ময়দানে নামেননি। এই বিষয়ে ওয়েড টপকালেন কলিন ইংগ্রামের রেকর্ড। ঘটনাক্রমে, ওয়েডের এই ম্যাচের আগে শেষ ম্যাচে ইংগ্রামও খেলেছিলেন। তারপরেই তাঁকে দীর্ঘদিন অপেক্ষা করতে হয়। 

তবে ওয়েডের আগে অবশ্য তিনি নিজের কামব্যাক ঘটিয়েছিলেন। ২০১৯ সালে ফের দিল্লির হয়েই মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে মাঠে নামেন ইংগ্রাম। প্রোটিয়া ব্যাটারের দুই ম্যাচের মধ্যে ব্যবধান ছিল ২৮৬৪ দিন। এ তালিকায় তৃতীয় স্থানে রয়েছেন জিমি নিশাম, তিনি ২৩১৪ দিনের ব্যবধানে ম্যাচ খেলেন। চতুর্থ স্থানে বাংলার শ্রীবৎস গোস্বামী। ২০১২ সালে রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে খেলার ২১৮৩ দিন বাদে তিনি ২০১৮ মরশুমে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন। পঞ্চম স্থানটা অনুরীত সিংয়ের। তাঁর দুই ম্যাচের মধ্যে ব্যবধান ছিল ২১৫৩ দিন।

বন্ধ করুন