বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > গলায় রজনীগন্ধার মালা, ঝকমকে পাঞ্জাবি, বরকেই খপাত করে ধরল পুলিশ
বরকে ধরে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ

গলায় রজনীগন্ধার মালা, ঝকমকে পাঞ্জাবি, বরকেই খপাত করে ধরল পুলিশ

  • বরকে এভাবে বিয়ের আসর থেকে তুলে নেওয়ার ঘটনাকে ঘিরে এলাকায় সাড়া পড়ে যায়। তবে চাইল্ড লাইন সূত্রে খবর, বিয়ের বয়স না হলে কোনওভাবেই বিয়ে করা যাবে না। এনিয়ে নির্দিষ্ট আইন রয়েছে। সেকারণেই বরকে আটক করা হয়। 

একেবারে গিলে করা ঝকমকে পাঞ্জাবি। সঙ্গে মানানসই ধুতি। জমে উঠেছিল বিয়ের আসর। বর্ধমান ২ ব্লকের নাদুর এলাকার ঘটনা। অতিথিরাও একে একে আসতে শুরু করেছেন। আচমকাই পুলিশ এসে হাজির বিয়ে বাড়িতে। প্রথমে কিছুটা হতচকিত হয়ে যান বাড়ির লোকজন। এরপর বিষয়টি বুঝতে পারেন বাসিন্দারা। তবে ততক্ষণে বর বিশ্বনাথ বিশ্বাসকে পুলিশের গাড়িতে তুলে ফেলা হয়েছে। ধুতি, পাঞ্জাবি পরেই তিনি পুলিশের গাড়়িতে উঠে পড়েন। তার বাড়ি শক্তিগড় থানার বড়শুলের কুমিরখোলা গ্রামে।

সূত্রের খবর, ওই গ্রামেই পাত্রীর বাড়ি। কনের বয়স ১৭ বছর। অর্থাৎ বিয়ের বয়স হয়নি এখনও। সেকারণে পুলিশ নিয়ে এসে এই নাবালিকার বিয়ে রুখে দিল চাইল্ড লাইন। এদিকে গলায় রজনীগন্ধা ফুলের মালা, তসরের পাঞ্জাবি পরে একেবারে বরবেশেই ধৃতকে এদিন পুলিশের গাড়িতে তোলা হয়।  

পাত্রীকে বর্ধমান জেলা চাইল্ড লাইনের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। আর বিয়ের আসর থেকে বরকে তুলে নিয়েছে পুলিশ। এদিকে বরকে এভাবে বিয়ের আসর থেকে তুলে নেওয়ার ঘটনাকে ঘিরে এলাকায় সাড়া পড়ে যায়। তবে চাইল্ড লাইন সূত্রে খবর, বিয়ের বয়স না হলে কোনওভাবেই বিয়ে করা যাবে না। এনিয়ে নির্দিষ্ট আইন রয়েছে। নাবালিকা বিবাহ যাতে না হয় সেজন্য় সরকারের তরফে সকলকে সচেতন করা হচ্ছে। 

বন্ধ করুন