বাড়ি > ঘরে বাইরে > জাহাজ-নৌঘাঁটিতে স্মার্টফোন ও সোশ্যাল মিডিয়ায় নিষেধাজ্ঞা নৌবাহিনীর
নিষেধাজ্ঞা স্মার্টফোন ও সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারে (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
নিষেধাজ্ঞা স্মার্টফোন ও সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারে (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)

জাহাজ-নৌঘাঁটিতে স্মার্টফোন ও সোশ্যাল মিডিয়ায় নিষেধাজ্ঞা নৌবাহিনীর

  • গোপন তথ্য পাচারের অভিযোগে গত ২০ ডিসেম্বর এক হাওয়ালা অপারেটর ও ভারতীয় নৌবাহিনীর সাত অফিসারকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা বিভাগ। তারপরেই এই পদক্ষেপ নৌবাহিনীর।

গোপন তথ্য পাচারের অভিযোগে কয়েকদিন আগেই গ্রেফতার করা হয়েছিল নৌবাহিনীর সাত অফিসারকে। মিলেছিল পাকিস্তানের যোগসূত্র। তা রুখতে এবার কড়া পদক্ষেপ নৌবাহিনীর। নৌঘাঁটি ও জাহাজে থাকার সময় স্মার্টফোন ও সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারের উপর নিষেধাজ্ঞা চাপিয়েছে দেশের জলরক্ষা বাহিনী।

নৌবাহিনীর এক উচ্চপদস্থ আধিকারিক বলেন, ‘ফেসবুক, ইনস্টাগ্রাম, হোয়্যাটস্অ্যাপ ও অন্যান্য মেসেঞ্জার-সহ সব সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এখন থেকে নৌঘাঁটি ও জাহাজে নিষেধ করা হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, গত ২০ ডিসেম্বর এক হাওয়ালা অপারেটর ও ভারতীয় নৌবাহিনীর সাত অফিসারকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা বিভাগ। কোন পথে চলবে রণতরী ও সাবমেরিন, সেই সংক্রান্ত তথ্য-সহ দেশের নিরাপত্তার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন তথ্য পাকিস্তানি এজেন্টদের হাতে তুলে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। নৌবাহিনীর ইস্টার্ন কম্যান্ডের প্রধান কার্যালয় বিশাখাপত্তনম, পরমাণু শক্তিধর সাবমেরিন আরিহ্যান্তের ঘাঁটি সংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্যও পাকিস্তানি এজেন্টদের হাতে চলে গিয়েছে বলে আশঙ্কা ছিল গোয়েন্দাদের। যা ভারতের নিরাপত্তার উপর বড়সড় প্রশ্ন তুলে দেয়। যদিও নৌবাহিনী জানায়, তাদের সুরক্ষা ব্যবস্থা অটুট রয়েছে। তাদের নিরাপত্তাবলয় কেউ ভেদ করতে পারেনি।


বন্ধ করুন